default-image

সরকারবিরোধী জোট পাকিস্তান ডেমোক্রেটিক মুভমেন্টকে (পিডিএম) আগামী ১৬ অক্টোবর পাঞ্জাবের গুজরানওয়ালা শহরে সমাবেশ করার অনুমতি দিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। পাকিস্তানের ‘দ্য ডন’ অনলাইনের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়।
সমাবেশের অনুমতি দিয়ে গতকাল সোমবার ইমরান খান বলেন, বিরোধীরা কতটা শক্তিশালী, তা পাকিস্তানের জনগণই বিচার করবে।
১১ অক্টোবর কোয়েটায় পিডিএমের প্রথম সরকারবিরোধী জনসভার কর্মসূচি ছিল। কিন্তু নিরাপত্তার কারণে সেই কর্মসূচি বাদ দেওয়া হয়।
পরে প্রধান বিরোধী দল পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) ও পাকিস্তান মুসলিম লিগ (পিএমএল–এন) ১৬ অক্টোবর গুজরানওয়ালায় ও ১৮ অক্টোবর করাচিতে পৃথক সমাবেশ করার সিদ্ধান্ত নেয়। কিন্তু তা–ও সম্ভব হচ্ছিল না। এ অবস্থায় বিরোধী জোট পিডিএম শেষ পর্যন্ত ১৬ অক্টোবর গুজরানওয়ালায় একটি মহাসমাবেশ করার সিদ্ধান্ত নেয়।

বিজ্ঞাপন

গুজরানওয়ালায় বিরোধীরা যাতে সমাবেশ করতে পারে, সে জন্য প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন।
তবে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সরকারবিরোধী জোটকে ‘ডাকাতদল’ হিসেবে অভিহিত করেছেন। তাঁর ভাষ্য, তারা (পিডিএম) নিজেদের দুর্নীতি ঢাকতেই সরকারবিরোধী প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছে।
গুজরানওয়ালায় সমাবেশের অনুমতি দেওয়াসংক্রান্ত বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিবৃতির বিষয়ে আপত্তি জানিয়েছে বিরোধী জোট। তারা বলেছে, সমাবেশ করার জন্য তাদের সরকারের কাছ থেকে অনুমতি নেওয়ার কোনো প্রয়োজন নেই।
প্রধানমন্ত্রী ইমরানের পদত্যাগের দাবিতে সম্প্রতি পাকিস্তানের বিরোধী দলগুলো জোট গঠন করে। সরকারবিরোধী এই জোটের নাম পাকিস্তান ডেমোক্রেটিক মুভমেন্ট বা পিডিএম।

মন্তব্য পড়ুন 0