বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

মার্কিন সংবাদমাধ্যম নিউইয়র্ক পোস্ট এক প্রতিবেদনে এ কথা জানিয়েছে। গ্রেপ্তার ব্যক্তির নাম জেমস কার্টজ।

স্টোন কাউন্টির শেরিফ ডাগ রাডার বলেন, ওই ব্যক্তি ফেসবুকে ছবি পোস্ট করার পরপরই তা পুলিশ বিভাগের নজরে পড়ে। ছবিতে স্পষ্টভাবে মাদকের একটি প্যাকেট দেখা যাচ্ছিল। তার পাশে ওই মাদক নেওয়ার সিরিঞ্জও দৃশ্যমান ছিল। ছবির পেছনের দিকে একটি টেবিলের ওপর রাখা ছিল এগুলো। এরপর তাঁর ঘরে তল্লাশি চালানো হয়। এ সময় ৪৮ গ্রাম মেথসহ একটি পিস্তল পাওয়া যায়। এই পিস্তল ও মাদক অবৈধভাবে সংগ্রহ করেছিলেন তিনি। এ কারণে গ্রেপ্তার করা হয় তাঁকে।

শেরিফ রাডার এ ব্যাপারে তাঁর অফিশিয়াল ফেসবুক পেজে একটি পোস্ট দিয়েছেন। মুহূর্তে সেটি ভাইরাল হয়। তিনি ওই পোস্টে লেখেন, ‘মনে রাখবেন, আপনি যখন কোনো পণ্য ফেসবুকে বেচবেন, নিশ্চিত হবেন যেন ওই ছবিতে কোনো মাদক না দেখা যায়!’

যদিও পরে ওই পোস্ট শেরিফের কার্যালয় সরিয়ে ফেলে, তবে তার স্ক্রিনশট এখনো সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ঘুরছে। অনেকেই তা শেয়ার করছেন। মজাদার সব মন্তব্য করছেন।

একজন ফেসবুক ব্যবহারকারী লিখেছেন, ‘আমার দেখা সেরা পোস্ট এটি!’ আরেকজন মন্তব্য করেন, ‘মানুষজন সব পাগল!’

সিএনএনের প্রতিবেদন অনুযায়ী স্টোন কাউন্টির একটি কারাগারে বন্দী কার্টজ। তাঁর বিরুদ্ধে অবৈধভাবে মাদক ও আগ্নেয়াস্ত্র রাখার অভিযোগ আনা হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন