default-image

করোনার টিকা নিলেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস। নিউইয়র্কে গতকাল বৃহস্পতিবার কোভিড-১৯ টিকার প্রথম ডোজ নেন তিনি।

ইউএন নিউজের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। নিউইয়র্কে জাতিসংঘের সদর দপ্তর থেকে কয়েক মাইল দূরে ব্রনক্সের আদলাই ই. স্টিভেনস হাইস্কুল কেন্দ্রে গিয়ে টিকা নেন গুতেরেস। পরে এক টুইটবার্তায় তিনি টিকা পেয়ে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের কাছে করোনাভাইরাসের টিকা সমানভাবে পৌঁছানোর বিষয়টি নিশ্চিত করার আহ্বান জানান জাতিসংঘের মহাসচিব।

গুতেরেস তাঁর বয়স বিবেচনাতেই করোনা টিকা পাওয়ার জন্য উপযুক্ত বলে নির্বাচিত হন। বর্তমানে নিউইয়র্ক শহরে ৬৫ বছরের ঊর্ধ্বে যাঁদের বয়স, তাঁদের টিকা দেওয়া হচ্ছে। গুতেরেসের বয়স এখন ৭১। নিউইয়র্কে এখন টিকা প্রাপ্তদের তালিকায় স্কুলের কর্মী, করোনা জরুরি সেবাদাতা ব্যক্তি, গণপরিবহন শ্রমিক ও দোকানের কর্মীরাও রয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

গত ডিসেম্বরে জনসমক্ষে খুশিতে টিকা নেওয়ার আগ্রহের কথা বলেছিলেন গুতেরেস। তিনি টিকা নেওয়াকে তাঁর নৈতিক দায়িত্ব বলেও মন্তব্য করেছিলেন।

জাতিসংঘের মহাসচিবের টিকা গ্রহণের বিষয়টি জানাতে সাংবাদিক ও আলোকচিত্রীদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল। বিশ্বের অনেক দেশে টিকা নিয়ে এখনো দ্বিধাদ্বন্দ্ব থাকার মধ্যেই জাতিসংঘের মহাসচিব টিকা নিলেন।

জাতিসংঘের আঞ্চলিক অফিসগুলো টিকা নিয়ে অনেকের অবিশ্বাসের বিষয়টি লক্ষ্য করেছে। জাপান ও ইউরোপের অনেক দেশের অর্ধেক মানুষ এখনো টিকা গ্রহণের বিষয়ে অনিশ্চয়তার কথা বলেছেন।

নিউইয়র্ক শহরের মেয়রের অফিস থেকে বলা হয়, জাতিসংঘ মহাসচিব টিকা নেওয়ার জন্য অনলাইনে নিবন্ধন করেছিলেন। তিনি নিউইয়র্কের একটি স্কুলে অন্য নাগরিকদের মতোই টিকা নিয়েছেন। জাতিসংঘ মহাসচিবের টিকা নেওয়ার বিষয়টি সবার জন্য টিকা নিরাপদ—এ বিশ্বাস অর্জনে সাহায্য করবে বলে মনে করছে মেয়রের অফিস।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন