বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

করোনা মহামারির কারণে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ২০২০ সালের শুরুর দিকে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের ক্ষেত্রে বিদেশি ভ্রমণকারীদের ওপর বিধিনিষেধ আরোপ করেছিলেন।

২০২১ সালের ২০ জানুয়ারি জো বাইডেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নেন। তিনি ক্ষমতায় এসে তাঁর পূর্বসূরি ট্রাম্পের জারি করা ভ্রমণসংক্রান্ত বিধিনিষেধ বহাল রাখেন।

যুক্তরাষ্ট্রের ভ্রমণসংক্রান্ত বিধিনিষেধ বহাল থাকায় তা নিয়ে সমালোচনা হয়। বিশেষ করে ইউরোপ, প্রতিবেশী কানাডা ও মেক্সিকোতে যুক্তরাষ্ট্রের ভ্রমণসংক্রান্ত নিষেধাজ্ঞার বিষয়টি বেশ অজনপ্রিয় ছিল।

বিশ্বের অধিকাংশ দেশের ভ্রমণকারীদের জন্য ২০২০ সালের মার্চ থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত বন্ধ ছিল। এর মধ্যে ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলো ছাড়াও যুক্তরাজ্য, চীন, ভারত ছিল।

দেড় বছরের বেশি সময় ধরে যুক্তরাষ্ট্রের ভ্রমণসংক্রান্ত বিধিনিষেধের কারণে বিশ্বের লাখো মানুষ ব্যক্তিগত ও আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

৬৩ বছর বয়সী অ্যালিসন হেনরি যুক্তরাজ্যের অধিবাসী। তাঁর ছেলে নিউইয়র্কে আছেন। ২০ মাস ধরে তাঁরা পরস্পর থেকে বিচ্ছিন্ন। আজই তিনি যুক্তরাজ্যে যাওয়ার পরিকল্পনা করছেন।

অ্যালিসন বলেন, তাঁর জন্য এই ২০ মাসের সময়টা খুবই কঠিন ছিল। তিনি এখন তাঁর ছেলেকে দেখতে মরিয়া।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন