বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

করোনার অতি সংক্রামক ধরন অমিক্রনের প্রকোপ যুক্তরাষ্ট্রে বেড়েছে। সংক্রমণ বৃদ্ধির প্রভাব এয়ারলাইনস কোম্পানিগুলোর ওপর পড়েছে।

বিভিন্ন এয়ারলাইনসের অনেক পাইলট, ফ্লাইট অ্যাটেনডেন্ট ও কর্মী কাজে যোগ দিতে পারছেন না। তাঁদের মধ্যে কেউ করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন। কেউবা করোনায় সংক্রমিত রোগীর সংস্পর্শে এসে কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন।

করোনার সংক্রমণের পাশাপাশি বৈরী আবহাওয়ার কারণেও যুক্তরাষ্ট্রে ফ্লাইট চলাচলে বিঘ্ন ঘটছে।

ফ্লাইট ট্র্যাকিং ওয়েবসাইট ফ্লাইটঅ্যাওয়ারের তথ্য অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় শনিবার রাত ১১টা নাগাদ সারা বিশ্বে ৪ হাজার ৬৯৮টি ফ্লাইট বাতিল হয়। এর মধ্যে ২ হাজার ৭২৩টি ফ্লাইট, অর্থাৎ অর্ধেকের বেশি ফ্লাইট বাতিল হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে।

এ ছাড়া শনিবার সারা বিশ্বে ১১ হাজার ৪৩টি অভ্যন্তরীণ ফ্লাইট চলাচল বিলম্বিত হয়েছে। এর মধ্যে ৫ হাজার ৯৯৩টি যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লাইট।

যুক্তরাষ্ট্রের এয়ারলাইনস কোম্পানি সাউথওয়েস্টের ওপর সবচেয়ে বেশি প্রভাব পড়েছে। কোম্পানিটিকে পূর্বনির্ধারিত ফ্লাইটের ১৩ শতাংশ বাতিল করতে হয়েছে।

বৈরী আবহাওয়ার কারণে শিকাগো এলাকার বিমানবন্দরগুলো সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এলাকাটিতে তুষারঝড়ের আশঙ্কা করা হচ্ছে।

যুক্তরাষ্ট্র থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন