default-image

যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসে সংক্রমণ শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ১০ লাখ ছাড়াল। আর মৃতের সংখ্যা ২ লাখ ৪৬ হাজার ছাড়িয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের জনস হপকিন্স ইউনিভার্সিটির সবশেষ তথ্য বলছে, যুক্তরাষ্ট্রে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমণ শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ১০ লাখ ৩৭ হাজার ৭৭৭। মৃতের মোট সংখ্যা ২ লাখ ৪৬ হাজার ২১৭ জন।

যুক্তরাষ্ট্রে করোনা থেকে সেরে ওঠা মানুষের সংখ্যা ৪১ লাখ ৮৫ হাজার ৪৬৩ জন।

পরিসংখ্যান নিয়ে কাজ করা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস অবশ্য যুক্তরাষ্ট্রে করোনা রোগী শনাক্ত, সুস্থ ও মৃতের সংখ্যা আরও বেশি দেখাচ্ছে।

যেকোনো হিসাবেই রোগী শনাক্ত ও মৃতের সংখ্যার দিক দিয়ে বিশ্বে এই মুহূর্তে করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্র।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স বলছে, স্থানীয় সময় রোববার যুক্তরাষ্ট্রে করোনা রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ১০ লাখ অতিক্রম করে।

৮ নভেম্বর ১ কোটি রোগী শনাক্তের ‘মাইলফলক’ অতিক্রম করে দেশটি।

যুক্তরাষ্ট্রে ১১ দিন ধরে প্রতিদিন ১ লাখের বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হচ্ছেন।

বিজ্ঞাপন

সবশেষ সাত দিনের গড় হিসাবে দেখা যায়, দেশটিতে প্রতিদিন ১ লাখ ৪৪ হাজারের বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হচ্ছেন। একই সময় দেশটিতে করোনায় প্রতিদিন গড়ে ১ হাজার ১২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। বিশ্বের যেকোনো দেশের তুলনায় এই হার সর্বোচ্চ।

যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে সবচেয়ে বেশি করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে টেক্সাসে। তারপর রয়েছে ক্যালিফোর্নিয়া। এই দুই অঙ্গরাজ্যে প্রায় ২১ লাখ করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। শতকরা হিসাবে তা ১৯ শতাংশ।

দেশটির হাসপাতালগুলোতে করোনা–সংশ্লিষ্ট রোগী ভর্তির সংখ্যা বেড়েই চলছে।

যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের উপদেষ্টারা করোনা মহামারি নিয়ন্ত্রণে জরুরি পদক্ষেপের ওপর জোর দিয়েছেন। তাঁরা সতর্ক করে বলেছেন, স্থানীয় হাসপাতালগুলোর স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা সংকটজনক অবস্থায় আছে। ক্ষমতা হস্তান্তর প্রক্রিয়া (ট্রানজিশন) বিলম্বিত হলে পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ রূপ নিতে পারে।

ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পরাজিত হলেও তিনি এখন পর্যন্ত হার মানতে নারাজ।

মন্তব্য পড়ুন 0