বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

বৈঠকে মার্চ ২০২১-এ চালু হওয়া লেবার রিফর্ম ইনিশিয়েটিভের বিষয়ে আলোচনা হয়। সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী লেবার রিফর্ম ইনিশিয়েটিভ বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে প্রবাসী কর্মীদের সমস্যা এবং তা কাটিয়ে ওঠার জন্য সম্ভাব্য উপায় হিসেবে সুনির্দিষ্ট কিছু প্রস্তাব তুলে ধরেন। তিনি বলেন, সৌদি আরবে বাংলাদেশি শ্রমিকেরা যাতে প্রতারিত না হন এবং চাকরির চুক্তিতে উল্লেখিত শর্তগুলো মানা হয়, সেটি দূতাবাসের কাছে মুখ্য বিষয়। রাষ্ট্রদূত বলেন, অনলাইন কন্ট্রাক্ট নবায়ন করার ক্ষেত্রে কখনো কখনো স্পনসরেরা জোর করে কর্মীদের বাধ্য করে এবং কন্ট্রাক্ট রিনিউ করতে রাজি না হলে তাঁদের ইচ্ছার বিরুদ্ধে এক্সিট ভিসা প্রদান করে। রাষ্ট্রদূত এসব সমস্যার সমাধানে সৌদি মানবসম্পদ ও সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয়ের আন্তরিক সহযোগিতা কামনা করেন। পাশাপাশি তিনি সৌদি লেবার ফোরামের নিয়মিত বৈঠক আয়োজনের ওপর গুরুত্বারোপ করেন, যাতে করে সৌদি আরবে প্রবাসী কর্মীদের সমস্যার সমাধানে সমন্বিত উদ্যোগ নেওয়া যায়।

সভায় ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, ইন্দোনেশিয়া, শ্রীলংকা ও ভিয়েতনামের রাষ্ট্রদূত ও মিশনের প্রধানেরা তাঁদের বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন। সৌদি মানবসম্পদ ও সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী তা সমাধানের আশ্বাস দেন। ফোরামের সভাপতি ফিলিপাইনের রাষ্ট্রদূত আদনান ভি আলোন্তো নিয়মিত এ ফোরামের সভা আয়োজনের আশাবাদ ব্যক্ত করে সভার সমাপ্তি ঘোষণা করেন। বিজ্ঞপ্তি

দূর পরবাস থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন