বৃহত্তর সিলেট ও কুড়িগ্রামে এবার বন্যায় প্রায় ৯৫ শতাংশ মানুষ আশ্রয় নিয়েছিল আশ্রয়কেন্দ্রে। অনেক বন্ধুর ঘরে খাবার নেই, যোগাযোগ নেই পরিবারের সঙ্গে। তবু নিজেদের সর্বোচ্চটা দিয়ে ও প্রথম আলো ট্রাস্টের ব্যবস্থাপনায় বন্যার্ত মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে সহায়তা পৌঁছে দিয়েছেন।

পক্ষাঘাতগ্রস্ত বগুড়ার সাজিদ আহমেদকে (১৮) ঈদের উপহার হিসেবে একটি হুইলচেয়ার দিয়েছে প্রথম আলো বগুড়া বন্ধুসভা। দেশ ও দেশের বাইরের ১১৪টি বন্ধুসভা ৮ এপ্রিল থেকে ২ মে দেশব্যাপী ঈদের উপহারসামগ্রী বিতরণ করেছে। সুবিধাবঞ্চিত ৩ হাজার ৭৪৯ শিশুকে নতুন জামা ও ৩ হাজার ৯৭১টি পরিবারকে ২৮ লাখ ১০ হাজার ১৭৪ টাকার খাদ্যসামগ্রী দিয়েছে তারা। ময়মনসিংহের বন্ধু শেখ শামীমের কিডনি ট্রান্সপ্ল্যান্টের জন্য ৩ লাখ ৮৭ হাজার ৬০০ টাকা সহায়তা করা হয়। শারদীয় দুর্গাপূজায় দরিদ্র পরিবার ও শিশুদের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী ও রঙিন পোশাক উপহার দিয়েছে সিলেট ও ড্যাফোডিল বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধুসভা।

সামাজিক দায়বদ্ধতা ও বন্ধুত্বের অংশ হিসেবে বন্ধুসভার বন্ধুরা এভাবে বছরজুড়ে শীতবস্ত্র বিতরণ, বৃক্ষরোপণ, সচেতনতামূলক কাজ, পাঠাগার নির্মাণ, মেডিকেল ক্যাম্প, রক্তদান কর্মসূচি, মাদকবিরোধী কর্মসূচি, বিতর্ক উৎসব, দরিদ্রদের সহায়তা, সাহিত্যপত্রিকা প্রকাশসহ নানা কাজ করে থাকেন। 

‘পৃথিবী একটাই, আসুন গাছ লাগাই’ প্রতিপাদ্যে এ বছর আষাঢ়, শ্রাবণ ও ভাদ্র মাসে (জুলাই-আগস্ট) দেশের ৬৫টি বন্ধুসভা মোট ৩০ হাজার ৯৫৬টি গাছের চারা লাগিয়েছে। কর্মসূচিতে বন্ধুরা নিজেরা বৃক্ষরোপণের পাশাপাশি সাধারণ মানুষকে উৎসাহী করতে ব্যতিক্রমী নানা কার্যক্রম চালান।

বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় ৫০০ ও লালমনিরহাটে ১৫০ শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণে বিতর্ক ও উপস্থাপনাবিষয়ক কর্মশালা হয়েছে। এর বাইরে সাংবাদিকতা, লেখালেখি, বাচিক উৎকর্ষ ও আবৃত্তি কর্মশালা, অনলাইন তথ্যের সত্যতা যাচাই কৌশল কর্মশালা, ফ্রিল্যান্সিংসহ বন্ধুদের আগামীর চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সারা দেশে নানা কর্মশালার আয়োজন করছে বন্ধুসভা। দেশের শীর্ষস্থানীয় ৩০টি করপোরেট প্রতিষ্ঠানকে নিয়ে দিনব্যাপী চাকরি মেলা করেছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধুসভা। বিনা মূল্যে রক্তের গ্রুপ নির্ণয়, ফ্রি ডেন্টাল চেকআপ, চক্ষু ও স্বাস্থ্যসেবা কর্মসূচি পালন করেছে গোপালগঞ্জ, বগুড়া, পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ও ঝিনাইদহ বন্ধুসভা। পাবনা ও ফেনী বন্ধুসভা শিক্ষকদের সম্মাননা দিয়েছে। মাদকের বিরুদ্ধে সচেতনতা বাড়াতে সারা দেশের বন্ধুসভা ফুটবল ও ক্রিকেট টুর্নামেন্টের আয়োজন করছে।

এর বাইরে সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ড ও নিজেদের মধ্যে পারস্পরিক সম্পর্ক দৃঢ় করে দেশের কল্যাণে এগিয়ে যেতে ঢাকা বিভাগীয় বন্ধু উৎসব, ময়মনসিংহ বিভাগীয় বন্ধু উৎসব, রবীন্দ্রনাথের প্রয়াণদিবস, জাতীয় শোক দিবস, নজরুলজয়ন্তী, বর্ষা উৎসব, ফল উৎসবসহ নানা সাংস্কৃতিক–সামাজিক অনুষ্ঠান করেছেন বন্ধুরা।

বন্ধুরা তাঁদের মানবতা ও রাষ্ট্রের স্বার্থে নিজেদের সময়ের সঙ্গে সঙ্গে এগিয়ে নিচ্ছেন। সবাই একসঙ্গে থেকে মানবিক উন্নয়নে কাজ করার এ শপথ অব্যাহত থাকুক। সবার জীবন সুন্দর হোক। প্রথম আলোর প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে হোক আমাদের অঙ্গীকার। 

লেখক: সভাপতি, প্রথম আলো বন্ধুসভা