default-image

কোভিড-১৯ থেকে সৃষ্ট চ্যালেঞ্জের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে সার্ক ব্যবস্থাকে কাজে লাগিয়ে আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদারে সদস্যদেশগুলোর পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের এক হয়ে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার সার্ক কাউন্সিলের অনানুষ্ঠানিক এক ভার্চ্যুয়াল বৈঠকে দেওয়া বক্তব্যে এই আহ্বান জানান বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, কোভিড-১৯ সহযোগিতার নতুন ক্ষেত্রগুলোর সঙ্গে অনেক নতুন নতুন সুযোগ উন্মুক্ত করবে। যদিও বিদ্যমান অনেক খাত আংশিক বা পুরোপুরি হারিয়ে যেতে পারে বা সেগুলোর প্রাসঙ্গিকতা আগের মতো না–ও থাকতে পারে।

সার্ককে পুনরুজ্জীবিত করার লক্ষ্যে কার্যকরভাবে সংস্থাটির বিভিন্ন কর্মপরিকল্পনা পুনর্বিবেচনার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দেন এ কে আব্দুল মোমেন।

বিজ্ঞাপন
default-image

কোভিড-১৯–পরবর্তী সময়ে খাদ্য ও কৃষি, জনস্বাস্থ্য, আইসিটি, বাণিজ্য ও বিনিয়োগের মতো খাতগুলোতে আরও বেশি নজর দেওয়ার প্রয়োজন রয়েছে বলে মত দেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

চলতি বছরের মার্চে অনুষ্ঠিত সার্ক নেতাদের ভিডিও কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেওয়া প্রস্তাব পুনর্ব্যক্ত করেন এ কে আব্দুল মোমেন। যেখানে কোভিড-১৯-এর পাশাপাশি ভবিষ্যতে অনুরূপ জনস্বাস্থ্যের যেকোনো হুমকি মোকাবিলায় সার্কের সব সদস্যরাষ্ট্রের সমর্থন নিয়ে ঢাকায় একটি সার্ক পাবলিক হেলথ রিসার্চ ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠার প্রস্তাব দেন প্রধানমন্ত্রী।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ বছর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উদযাপন উপলক্ষে আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদার করার জন্য দক্ষিণ এশিয়ার একটি সাধারণ প্ল্যাটফর্ম হিসেবে সার্ক ফোরামকে শক্তিশালী করতে বাংলাদেশের দৃঢ় প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেন।

বিজ্ঞাপন

ভার্চ্যুয়াল বৈঠকে সন্ত্রাসবাদকে চূড়ান্তভাবে পরাস্ত করার জন্য সার্কের সদস্যদেশগুলোকে সম্মিলিতভাবে সংকল্পবদ্ধ হওয়ার আহ্বান জানান ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। সংযুক্ত, সংহত, সুরক্ষিত ও সমৃদ্ধ দক্ষিণ এশিয়া গড়ার ক্ষেত্রে সার্কের প্রতি ভারতের অবিচল প্রতিশ্রুতি পুনর্ব্যক্ত করেন দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

এ ছাড়া কোভিড-১৯ মহামারি মোকাবিলায় সার্ক অঞ্চলের দেশগুলোকে সহায়তা করার ক্ষেত্রে ভারতের অব্যাহত প্রতিশ্রুতিও পুনর্ব্যক্ত করেন তিনি।

বৈঠকে দক্ষিণ এশীয় অঞ্চলে কোভিড-১৯ মহামারির বিরূপ প্রভাবগুলো কাটিয়ে উঠতে সম্মিলিতভাবে কাজ করার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দেন সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা।

সার্ক সচিবালয়ের তথ্য অনুসারে, সার্কের সব সদস্যরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রবিষয়ক মন্ত্রীদের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন নেপালের পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রদীপ কুমার।

মন্তব্য পড়ুন 0