প্রতিবছর ঈদের দিন দুপুরে নিকটাত্মীয়দের সঙ্গে মধ্যাহ্নভোজ সারেন খালেদা জিয়া। এবারও তাঁর ভাই শামীম ইসকান্দার, তাঁর পরিবারের সদস্য ও তাঁর আরেক ভাই প্রয়াত সাঈদ ইসকান্দারের স্ত্রী ও পরিবারের অন্যরা খালেদা জিয়ার কাছে আসবেন। তাঁরা দুপুরে একসঙ্গে মধ্যাহ্নভোজে অংশ নেবেন।

খালেদা জিয়া লন্ডনে থাকা তাঁর বড় ছেলে তারেক রহমান, তাঁর পরিবারের সদস্য এবং ছোট ছেলে প্রয়াত আরাফাত রহমানের স্ত্রী ও সন্তানদের সঙ্গে ফোনে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন।

আজ দলীয় কোনো নেতার খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করার কোনো কর্মসূচি নেই। তবে দলীয় মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বা স্থায়ী কমিটির কোনো সদস্য দেখা করতে পারেন।

পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। তিনি দলীয় নেতা-কর্মীসহ সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদ পালনের আহ্বান জানিয়েছেন।

৭৫ বছর বয়সী খালেদা জিয়া করোনায় আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন অসুস্থ ছিলেন। রাজধানীর এভারকেয়ার হাসপাতালে ৫৪ দিন চিকিৎসাধীন ছিলেন তিনি।

পুরোপুরি সুস্থ না হলেও হাসপাতালে জীবাণু ও দেশে করোনার ডেলটা ধরনের সংক্রমণের মধ্যে ঝুঁকি এড়াতে খালেদা জিয়াকে গত ১৯ জুন গুলশানের বাসায় নেওয়া হয়। তিনি বর্তমানে বাসাতেই আছেন। গত সোমবার তিনি মডার্নার টিকা নিয়েছেন।