বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, নিজেদের চরম ব্যর্থতা ঢাকতে এসব কাল্পনিক ও অন্তঃসারশূন্য বাক্যচর্চা বিএনপির পুরোনো অভ্যাস। বিএনপি যে অপরাজনীতি ও নেতিবাচক রাজনীতি অব্যাহত রেখেছে, তাতে তারা ক্রমশ হতাশার গভীরেই নিমজ্জিত হচ্ছে।

সেতুমন্ত্রী বলেন, জনগণের প্রশ্ন, বিএনপি কি এখন বিএনপি আছে? সাম্প্রদায়িক উগ্রবাদ আর স্বাধীনতার পরাজিত শত্রুদের সঙ্গে সখ্য করতে গিয়ে বিএনপি এখন নিজ চরিত্র হারিয়েছে। অন্ধ সমালোচনা আর বিষোদ্‌গারের রাজনীতি ফ্রাঙ্কেনস্টাইন হয়ে নিজেদেরই আঘাত করছে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলটির নেতারা যত কথাই বলুন না কেন, জনপ্রত্যাশা থেকে ছিটকে পড়ে ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে ক্ষমতা পেতে মরিয়া এই দলের নেতা-কর্মীরা এখন গণহতাশায় ভুগছেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির জনসমর্থন তলানিতে পৌঁছে যাওয়ায় তারা আওয়ামী লীগকে দেউলিয়া বলে যে দিবাস্বপ্ন দেখছে, তা তাদের ভাবনায় জনপ্রত্যাখ্যান থেকে সৃষ্ট প্রলাপমাত্র।

সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, আওয়ামী লীগ কোনো ভুঁইফোড় সংগঠন নয় যে কারও যোগসাজশে দেশ চালাতে হবে। শেখ হাসিনা জনমানুষের আস্থা ও সমর্থন নিয়েই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন।

সেতুমন্ত্রী বলেন, দেশের মানুষ জানে, আওয়ামী লীগ শোষণ করে না, বরং দেশকে শোষণমুক্ত করেছে। আওয়ামী লীগ জনগণের সম্পদ লুটপাট করে না। বরং মানুষের জীবন ও সম্পদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করেছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, আওয়ামী লীগ গঠনতন্ত্রনির্ভর সুশৃঙ্খল ও গণতান্ত্রিক দল। অভ্যন্তরীণ গণতন্ত্র চর্চায় আওয়ামী লীগ সব দলের চেয়ে এগিয়ে।

তোষামোদের রাজনীতিতে আওয়ামী লীগ বিশ্বাস করে না জানিয়ে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘নেতৃত্ব তোষণে বিএনপি যে ধারা তৈরি করেছে, তা রীতিমতো শিল্পে রূপ নিয়েছে। তোষামোদের রাজনীতির পেটেন্ট বিএনপির।’

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন