অবশ্য ওই কর্মকর্তা পবিত্র ওমরাহ পালনের জন্য ছুটিতে রয়েছেন। আজ রোববার দুপুরে তাঁর সৌদি আরবের উদ্দেশে রওনা হওয়ার কথা। এ বিষয়ে বক্তব্য জানতে যোগাযোগ করা হলে তাঁর মুঠোফোন নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়।

কারণ দর্শানোর নোটিশে বলা হয়, ওই কর্মকর্তা বেশ কিছু দিন ধরে নারী সহকর্মীকে অশালীন ভাষায় গালিগালাজ ও আপত্তিকর কথাবার্তা বলে আসছেন। অফিসকক্ষ ফাঁকা থাকলে অফিস সহায়ককে অন্য কোথাও পাঠিয়ে দিয়ে ওই নারী কর্মকর্তাকে আপত্তিকর কথাবার্তা বলতেন। ওই নারীকে কক্ষে ডেকে নিয়ে গিয়ে কম্পিউটারে আপত্তিকর ছবি বের করে বলেন, এগুলো দেখলে মনে প্রশান্তি আসবে। ওই কর্মকর্তা ওই নারীকে মার্কেটে এবং বন্ধুর বাসায় যাওয়ারও প্রস্তাব দেন।

অভিযোগে আরও বলা হয়, ওই নারী ওয়াশরুমে যাওয়ার পথে মাঝে মাঝে ওই কর্মকর্তা পথরোধ করার চেষ্টা করেন। ইজ্জত রক্ষার কথা ভেবে ওই নারী চুপ ছিলেন। কিছুদিন আগে ওই কর্মকর্তা অফিসকক্ষ ফাঁকা পেয়ে ওই নারী সহকর্মীর গায়ে হাত দেওয়ার চেষ্টা করেন, চিৎকার করলে তাঁর মুখ চেপে ধরেন এবং ঘটনা কাউকে বললে মেরে ফেলার হুমকি দেন।