এত দিন হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের চিকিৎসায় পেসমেকার ব্যবহার করা হতো। দুর্বল বা অনিয়মিত হৃদস্পন্দন কাটিয়ে ওঠার জন্য ইলেকট্রনিক বা বৈদ্যুতিক যন্ত্রই হচ্ছে পেসমেকার। দীর্ঘদিন গবেষণার পর দেখা যাচ্ছে, একই প্রযুক্তি স্নায়ু বিকল হওয়া মানুষের জন্য ব্যবহার করা যায়।

কিছু স্নায়ুরোগ পুরোপুরি ভালো হয় না। তার মধ্যে পারকিনসনস একটি। তবে ওষুধে রোগী কিছুটা ভালো থাকেন। অনেক দিন ব্যবহারের পর ওষুধও অকার্যকর হয়ে পড়ে। এসব রোগীর জন্য ‘ডিপ ব্রেইন স্টিমুলেশন’ নামের অস্ত্রোপচার প্রধান বিকল্প। এতে রোগী সুস্থ হয় না, তবে রোগীর জীবনমান বাড়ে। রোগী স্বাভাবিক জীবন–যাপন করতে পারেন বলে চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন।

‘ডিপ ব্রেইন স্টিমুলেশন’ অস্ত্রোপচারে মস্তিষ্কের গভীরে বিশেষ প্রযুক্তি ব্যবহার করে বিদ্যুৎ সঞ্চালন করা হয়। রোগীর বুকে একটি ব্যাটারি লাগানো হয়, নিয়মিত বিদ্যুৎ সরবরাহের জন্য। এতে প্রায় নিষ্ক্রিয় হওয়া স্নায়ুকোষ উদ্দীপিত হয়।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন