বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

পরিকল্পনা মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো প্রতি ১০ বছর অন্তর দেশের প্রকৃত জনসংখ্যা ও গৃহের অবস্থা জানার পর জনশুমারি ও গৃহগণনা পরিচালনা করে থাকে। পূর্বের আদম শুমারি ও গৃহগণনার নাম পরিবর্তন করে এখন জনশুমারি ও গৃহগণনা করা হয়েছে।

নোয়াখালী-২ আসনের মোরশেদ আলমের প্রশ্নের জবাবে পরিকল্পনামন্ত্রী জানান, সর্বশেষ তাঁতশুমারী (২০১৮) অনুযায়ী, বর্তমানে তাঁতশিল্পের সংখ্যা এক লাখ ১৬ হাজার ১১৭টি। তাঁতির সংখ্যা তিন লাখ ১৬ হাজার ৩১৫ জন।

সরকারি দলের সাংসদ নুরুন্নবী চৌধুরীর প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন বলেন, বাংলাদেশ মাদক উৎপাদনকারী দেশ না হয়েও ভৌগোলিক কারণে মাদক সমস্যার কবলে পড়েছে। প্রতিবেশী ভারত ও মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে অবৈধ মাদক প্রবেশ করে। ইয়াবা আসে মিয়ানমার থেকে আর গাঁজা, ফেনসিডিল, হেরোইন ও ইনজেক্টিং ড্রাগ ভারত থেকে অনুপ্রবেশ করে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী জানান, চলতি অর্থ বছরের তিন মাসে (জুলাই-সেপ্টেম্বর) ৩১ হাজার ৫৪৫ জন মাদক চোরাকারবারি বিরুদ্ধে ২৩ হাজার ৮০০টি মামলা দায়ের করে আইনের আওতায় আনা হয়েছে। এসব মামলায় এক কোটি ৫৫ লাখ ৪৯ হাজার ৯৩৮ পিস ইয়াবা, ১১৬ দশমিক ১৮৭ কেজি হেরোইন, ২০ হাজার ৭৪২ কেজি গাঁজা, ৮১ হাজার ৪৮৪ বোতল ফেনসিডিল, ১৯ হাজার ২৪৮ এ্যাম্পুল ইনজেক্টিং ড্রাগ এবং ৫৭ হাজার ৯৭১ বোতল বিদেশি মদ জব্দ করা হয়েছে।

বাংলাদেশ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন