শিশুদের অধিকার রক্ষা ও উন্নয়নের লক্ষ্যে গঠিত আরবান সংসদীয় ককাসের প্রস্তাবিত কার্যক্রমের ওপর প্রথম আলোচনা সভা জাতীয় সংসদের এমপি হোস্টেলের এলডি হলে অনুষ্ঠিত হয়
ছবি: সংগৃহীত

যৌন নিরাপত্তায় মেয়েরা শুধু নয়, ছেলে শিশুরাও আজ অনিরাপদ। এখন পথশিশুদের সংখ্যাও বেড়ে যাচ্ছে। এই অবস্থায় টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) পূরণের সূচক দেখলে ভয় লাগে যে লক্ষ্যে পৌঁছানো যাবে কি না। শিশুদের অধিকার রক্ষা ও উন্নয়নের লক্ষ্যে গঠিত আরবান সংসদীয় ককাসের প্রস্তাবিত কার্যক্রমের ওপর প্রথম আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন সংসদ সদস্যরা। আজ শনিবার জাতীয় সংসদের এমপি হোস্টেলের এলডি হলে সভাটি অনুষ্ঠিত হয়।

চলতি বছরের ১১ ফেব্রুয়ারি আরবান সংসদীয় ককাসের ১০ সদস্যের অ্যাডহক কমিটি গঠিত হয়। জাতীয় সংসদের ডেপুটি স্পিকার শামসুল হক টুকুকে উপদেষ্টা ও সংসদ সদস্য রানা মোহাম্মদ সোহেলকে চেয়ারপারসন করে গত ৫ জুন ১২ সদস্যের চূড়ান্ত কমিটি গঠিত হয়। অন্য সদস্যরা হলেন সদস্যসচিব আরমা দত্ত, রুবিনা আক্তার মিরা, আবিদা আনজুম মিতা, সিমিন হোসেন রিমি, জুয়েল আরেং, শবনম জাহান শীলা, শামসুন নাহার, শিরিন আহমেদ, বাসন্তী চাকমা ও হাবিবা রহমান খান।

সভায় স্বাগত বক্তব্যে সংসদ সদস্য সিমিন হোসেন রিমি বলেন, ‘এসডিজি সূচক দেখে ভয় লাগে যে আমরা পারব তো এসব পূরণ করতে? আমরা কি সেই জায়গায় যেতে পারব?’ তিনি আরও বলেন, যৌন নিরাপত্তায় শুধু মেয়েরা নয়, ছেলেরাও একেবারে অনিরাপদ। পথশিশুদের সুন্দর ভবিষ্যৎ নিশ্চিত করতে নিরাপদ আশ্রয়কেন্দ্র দরকার। পথশিশু যেন আর তৈরি না হয়, সে জায়গায় কাজ করতে হবে সমন্বিতভাবে।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে ককাসের চেয়ারপারসন রানা মোহাম্মদ সোহেল বলেন, পথশিশু বেড়ে যাচ্ছে কেন, তা চিহ্নিত করে সমাধান করাই ককাসের কাজ। আর ঢাকায় শুধু শিক্ষা ও স্বাস্থ্য নয়, পথশিশুদের বিনোদনকেও অন্তর্ভুক্ত করতে কাজ করবে ককাস। সরকারি-বেসরকারি সবাইকে নিয়ে আসতে হবে এক জায়গায়।

সভায় আন্তর্জাতিক সংস্থা ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশের জ্যেষ্ঠ পরিচালক (অপারেশনস) চন্দন জেড গমেজ বলেন, ওয়ার্ল্ড ভিশন বাংলাদেশ এই ককাসের উদ্যোগ নিয়েছে। এই ককাসের লক্ষ্য বাস্তবায়নে যার যার জায়গা থেকে কাজ করতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্নের স্মার্ট বাংলাদেশ গড়ার অন্যতম শর্ত হলো সবাইকে নিয়ে একসঙ্গে এগিয়ে চলা, যার মধ্যে শিশুরাও রয়েছে।

সভায় আরবান সংসদীয় ককাস গঠনের লক্ষ্য, উদ্দেশ্য ও কার্যক্রমবিষয়ক তথ্য উপস্থাপন করেন ককাসের সদস্যসচিব আরমা দত্ত।