আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তরের (আইএসপিআর) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতেই খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা সেনাসদস্যদের মহান মুক্তিযুদ্ধকালীন বীরত্বগাথা এবং শান্তিকালীন পদকপ্রাপ্তদের প্রশংসনীয় কর্মকাণ্ডের সারসংক্ষেপ তুলে ধরা হয়। খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা সেনাসদস্য এবং তাঁদের নিকটাত্মীয়ের কুশলাদি বিনিময় ও শুভেচ্ছা উপহার প্রদান করেন সেনাপ্রধান।

অনুষ্ঠানে ৩০ সেনা কর্মকর্তা ও সেনাসদস্যকে পদক দেওয়া হয়। এর মধ্যে ১০ জনকে অসামান্য সেবা পদক (ওএসপি) ও ২০ জনকে বিশিষ্ট সেবা পদকে (বিএসপি) ভূষিত করেন জেনারেল এস এম শফিউদ্দিন আহমেদ। ২০২১–২২ সালে শান্তিকালীন সময়ে দেশমাতৃকার সেবায় আত্মনিয়োগ, প্রশংসনীয় ভূমিকা পালন ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ এ পদক দেওয়া হয়।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে মুক্তিযোদ্ধা সেনাসদস্য, তাঁদের নিকটাত্মীয়, ঊধ্বর্তন সামরিক কর্মকর্তা, বিভিন্ন পদকপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ও সেনাসদস্য এবং গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব উপস্থিত ছিলেন। দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে বীর মুক্তিযোদ্ধা সেনা কর্মকর্তা ও সেনাসদস্যদের অবদানকে চিরস্মরণীয় করে রাখতে প্রতিবছরই সেনাবাহিনী সদর দপ্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে থাকে।