শাহরিয়ারের বন্ধু রাকিব হোসেন বুধবার রাতে প্রথম আলোকে বলেন, তাঁর ছোট বোন তানজিলা (১৬) বাতজ্বরে ভুগছে। গত ২০ দিন ধরে সে সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ভর্তি। তাকে রক্ত দিতে সাভার থেকে আসেন শাহরিয়ার। রক্ত দেওয়ার পর রাত সাড়ে আটটার দিকে হাসপাতালে বসে ছিলেন তিনি। এ সময় রাকিব বোনের সঙ্গে দেখা করতে যান। কিছুক্ষণ পর তিনি জানতে পারেন, মাথা ঘুরে দোতলা থেকে নিচে পড়ে গেছেন শাহরিয়ার। পরে তাঁকে গুরুতর আহত অবস্থায় রাত ১০টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়।

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক মো. বাচ্চু মিয়া বলেন, হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শাহরিয়ারকে মৃত ঘোষণা করেন।

রাজধানী থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন