বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

গত ৪ মার্চ এই মামলায় সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ হয়। এরপর করোনাভাইরাসের কারণে আদালতের স্বাভাবিক বিচারকাজ বন্ধ থাকায় মামলার সাক্ষ্য গ্রহণের পরবর্তী কার্যক্রম আটকে ছিল। তবে সম্প্রতি আদালতের স্বাভাবিক বিচারকাজ শুরু হওয়ার পর গতকাল রোববার ও আজ দুজন আসামির পক্ষে মোট চারজন সাফাই সাক্ষ্য দেন।

আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় গ্রেপ্তার ২২ আসামিকে আজ কারাগার থেকে আদালতে হাজির করা হয়। পিপি আবদুল্লাহ আবু বলেন, সাক্ষ্য গ্রহণ শেষ হওয়ায় আগামী ৭ সেপ্টেম্বর রাষ্ট্রপক্ষ থেকে প্রথমে আদালতে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করা হবে।

২০১৯ সালের ৬ অক্টোবর রাতে বুয়েটের শেরেবাংলা হল থেকে তড়িৎ ও ইলেকট্রনিকস প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় করা মামলায় ওই বছরের ১৩ নভেম্বর বুয়েটের ২৫ ছাত্রের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ। গত বছরের ২১ জানুয়ারি অভিযোগপত্রটি আমলে নেন আদালত। গত বছরের ২ সেপ্টেম্বর তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। অভিযুক্ত ব্যক্তিদের মধ্যে তিনজন আসামি পলাতক। অভিযোগপত্রে বলা হয়, পরস্পর যোগসাজশে শিবির সন্দেহে আবরারের বিরুদ্ধে মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন অভিযোগ এনে নির্মমভাবে পিটিয়ে তাঁকে হত্যা করা হয়েছে।

রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনা করছেন আবু আবদুল্লাহ ভূঁইয়া, আবদুস সোবহান তরফদার, প্রশান্ত কুমার কর্মকার, মিজানুর রহমান, আলমগীর হোসেন, শহিদুল ইসলাম ও মশিউর রহমান। আসামিপক্ষের আইনজীবী হিসেবে আছেন মাহাবুব আহমেদ, আমিনুল গণী, গাজী জিল্লুর রহমান, আজিজুর রহমান, ফারুক আহমেদ প্রমুখ।

রাজধানী থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন