আবহাওয়া অধিদপ্তর জুলাই মাসের গোড়াতেই বলেছিল, এ মাসে বৃষ্টি অপেক্ষাকৃত কম হবে। এ ছাড়া দেশের কিছু স্থানে তাপপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার পূর্বাভাসও দিয়েছিল। রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন এলাকা বৃষ্টিহীন ছিল কয়েক দিন। তীব্র গরম দেশের বিভিন্ন এলাকায়। আবহাওয়া অধিদপ্তর গতকাল রোববার বলেছে, এমন তাপমাত্রা আরও অন্তত দুই দিন থাকবে। দুই দিন পর থেকে বৃষ্টির তীব্রতা বাড়বে। তখন তাপমাত্রা কমে আসবে। এটা ছিল সারা দেশের পূর্বাভাস। তবে এর আগেই আজ বৃষ্টির দেখা মিলল রাজধানীতে।

সকালের পূর্বাভাসে শুষ্ক থাকার কথা বলার পরও বৃষ্টি হলো কেন—জানতে চাইলে এর ব্যাখ্যা দিলেন অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ মো. হাফিজুর রহমান। তিনি আজ প্রথম আলোকে বলেন, তিন মিলিমিটার বা এর কম বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকলে সেটাকে প্রধানত শুষ্কই বলা হয়। আর আজ ঢাকা ও এর আশপাশে সর্বত্র বৃষ্টি হচ্ছে না। ঢাকার পূর্বাঞ্চলজুড়ে বৃষ্টি হয়েছে।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আগামী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রাজশাহী, রংপুর ও নীলফামারী জেলার ওপর দিয়ে মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে এবং তা প্রশমিত হতে পারে। সারা দেশে দিনের তাপমাত্রা সামান্য কমতে পারে এবং রাতের তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায়, রংপুর, খুলনা, বরিশাল ও ময়মনসিংহ বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রাজশাহী ও ঢাকা বিভাগের দু–এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও বিচ্ছিন্নভাবে মাঝারি ধরনের ভারী ধরনের বর্ষণ হতে পারে।


গত ২৪ ঘণ্টায় দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয় সৈয়দপুরে, ৩৭ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সর্বনিম্ন কুতুবদিয়া ও টেকনাফে, ২৫ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর দেশের সর্বোচ্চ বৃষ্টি হয় সিলেটে, ৪৮ মিলিমিটার।

আবহাওয়াবিদ হাফজুর রহমান বলেন, আজ দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলে এবং সিলেটে অপেক্ষাকৃত বেশি বৃষ্টি হবে।

রাজধানী থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন