বিমানবন্দরের ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সাফজয়ী মহিলা ফুটবল দল বুধবার বেলা ১টা ৪২ মিনিটে উড়োজাহাজে (বিজি-৩৭২) করে কাঠমাণ্ডু থেকে ঢাকায় অবতরণ করে। পরে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের (বাফুফে) প্রতিনিধি ইমরানের কাছ থেকে এবং গণমাধ্যম ও বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ফুটবল দলের দুই নারী সদস্যের হাতব্যাগ থেকে ডলার ও টাকা চুরির অভিযোগ পাওয়া যায়। ওই অভিযোগের ভিত্তিতে হজরত শাহজালাল বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ ক্লোজড সার্কিট টিভি (সিসি) ফুটজে পর্যবেক্ষণ ও বিশ্লেষণ করে চুরির ঘটনার প্রমাণ পায়নি বলে নিশ্চিত হয়েছে।

সিসিটিভি ফুটেজ বিশ্লেষণে দেখা যায়, সাফজয়ী ফুটবলারদের নিয়ে বুধবার বেলা ১টা ৪২ মিনিটে হজরত শাহজালাল বিমানবন্দরে অবতরণ করে। বেলা ১টা ৫৮ মিনিটে ব্যাগেজ মেকআপ এরিয়ার ট্রলি আসে। বেলা ১টা ৫৯ মিনিটে ব্যাগেজ মেকআপ এরিয়ার প্রথম লাগেজ ড্রপ হয়। বেলা ২টার দিকে কনভেয়ার বেল্ট-৮–এ প্রথম লাগেজ ড্রপ করা হয়। বেলা ২টা ৮ মিনিটে ব্যাগেজ মেকআপ এরিয়ার শেষ ব্যাগেজ ড্রপ হয়। পরে বাফুফে প্রটোকল প্রতিনিধি ও দুজন টিম অফিশিয়াল লাগেজ ট্যাগ চেক করে সম্পূর্ণ অক্ষত ও তালাবদ্ধ অবস্থায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইনস কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে লাগেজগুলো বুঝে নিয়ে বিমানবন্দর ত্যাগ করেন।

এর আগে সকালে বিমানবন্দরে দায়িত্বরত এপিবিএন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জিয়াউল হক প্রথম আলোকে বলেছিলেন, ‘আমরা চুরির সংবাদ পাওয়ার পর বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু করেছি।’

অপরাধ থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন