default-image

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের অনুসারীরা পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন করেছেন। আজ শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বসুরহাট রূপালী চত্বরে কাদের মির্জা এবং দুপুর সাড়ে ১২টায় উপজেলার পেশকারহাট রাস্তার মাথায় ওবায়দুল কাদেরের অনুসারীরা সংবাদ সম্মেলন করেন। এতে একই দিনে ঘোষণা করা হয়েছে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি।

সংবাদ সম্মেলনে কাদের মির্জা অভিযোগ করেন, গতকাল শুক্রবার বিকেলে প্রশাসনের সহযোগিতায় তাঁর নেতা-কর্মীদের ওপর হামলা ও গুলি চালিয়েছেন সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদল ও তাঁর লোকজন। এতে তাঁর অর্ধশতাধিক সমর্থক আহত হয়েছেন। ওই হামলার প্রতিবাদে সোমবার সকাল ১০টায় উপজেলা পরিষদের ফটক থেকে থানার সামনে হয়ে বসুরহাট বাজার পর্যন্ত মানববন্ধন করবেন তাঁরা। এতে অংশ নিতে বসুরহাট বাজারের ব্যবসায়ী, বিভিন্ন পেশাজীবী মানুষ, সংস্কৃতিকর্মী সবাই আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এর আগে আজ সকাল ছয়টা থেকে হরতাল পালন করেন কাদের মির্জা ও তাঁর লোকজন। নোয়াখালী ও ফেনীর দুই সাংসদের অপরাজনীতি বন্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ, জেলার ডিসি, এসপি, কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি ও পরিদর্শককে (তদন্ত) প্রত্যাহার এবং কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলসহ কয়েকজন নেতা-কর্মীকে গ্রেপ্তারের দাবিতে হরতাল পালন করেন তাঁরা। কাদের মির্জার নেতৃত্বে হরতালের সমর্থনে বের হওয়া একটি মিছিলে ধাওয়া ও লাঠিপেটা করে পুলিশ। এতে কয়েকজন আহত হয়েছেন।

বিজ্ঞাপন
default-image

দুপুরে পাল্টা সংবাদ সম্মেলনে করে সেতুমন্ত্রীর অনুসারী ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদল দাবি করেন, দুই মাস ধরে আবদুল কাদের মির্জা পুরো কোম্পানীগঞ্জকে জিম্মি করে রেখেছেন। আওয়ামী লীগ সভানেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরসহ দলীয় নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে কাদের মির্জার অব্যাহত মিথ্যাচারের প্রতিবাদে গতকাল বিকেলে চাপরাশিরহাট বাজারে শান্তিপূর্ণ মিছিল বের করেন তাঁরা। মিছিলে কাদের মির্জার লোকজন গুলি ও হামলা চালান। একপর্যায়ে কাদের মির্জার নেতৃত্বে তাঁর বাড়িতেও হামলা চালানো হয়। এতে এক সাংবাদিকসহ তাঁর বেশ কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।

মিজানুর রহমান অভিযোগ করেন, কাদের মির্জা তথাকথিত ‘সত্যবচনের’ নামে একের পর এক অপরাজনীতি করে যাচ্ছেন, দলীয় প্রধান শেখ হাসিনা ও সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বিরুদ্ধে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য দিচ্ছেন। কাদের মির্জার এমন অপরাজনীতির প্রতিবাদ ও শাস্তির দাবিতে সোমবার বসুরহাট রূপালী চত্বরে বিক্ষোভ সমাবেশের ঘোষণা দেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন