বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

জিডি ও পরিবার সূত্রে জানা যায়, নাঈম উপজেলার জুগিয়া পালপাড়া এলাকার লাল মোহাম্মদ হাফিজিয়া মাদ্রাসার আবাসিক শিক্ষার্থী। গত রোববার বিকেলে ওই মাদ্রাসার সামনে থেকে সে নিখোঁজ হয়। পরের দিন সোমবার সাধারণ ডায়েরি করেন নাঈমের মা নাছরিন খাতুন।

নাঈমের পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন, মুঠোফোনে তাঁদের কাছে এক লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করে আসছিলেন অপহরণকারীরা। টাকা না পেয়ে তাঁরা হুমকি দিয়ে আসছিলেন। এমনকি মুঠোফোনে নাঈমের কান্নার অডিও ক্লিপও পাঠানো হয়। নিরুপায় হয়ে তাঁরা বিকাশের মাধ্যমে মুক্তিপণ হিসেবে ২০ হাজার টাকা পাঠান। এরপরও নাঈমের কোনো হদিস পাচ্ছিলেন না।

র‍্যাব-১২–এর কুষ্টিয়া ক্যাম্পের কমান্ডার স্কোয়াড্রন লিডার ইলিয়াস খান স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আজ বেলা দেড়টায় পোড়াদহ এলাকায় অভিযান চালিয়ে নাঈমকে উদ্ধার করা হয়। তবে এ ঘটনায় কাউকে আটকের কোনো তথ্য জানানো হয়নি। নাঈমকে সুস্থ অবস্থায় তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন