default-image

সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলায় খাসজমির দখল নিয়ে বিরোধের জেরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছেন। আজ শনিবার সকাল ১০টায় উপজেলার ভাটিপাড়া ইউনিয়নের নূর নগর গ্রামে এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও ১০ জন। নিহত ব্যক্তির নাম শাহ মুল্লুক (৪২)। তিনি নুরনগর গ্রামের বাসিন্দা।

পুলিশ ও স্থানীয় ব্যক্তিদের সূত্রে জানা গেছে, নূর নগর গ্রামের পাশের কিছু খাসজমির দখল নিয়ে গ্রামের ফিরোজ আলী ও সাব্বির আহমদের বিরোধ চলছিল। এর জেরে দুই দিন আগে সাব্বির আহমদের পক্ষের এক নারীকে মারধর করেন প্রতিপক্ষের লোকজন। এরপর দুই পক্ষের উত্তেজনা চলছিল। এর জেরেই আজ সকালে দুই পক্ষের মধ্যে প্রথমে কথা–কাটাকাটি এবং পরে সংঘর্ষ শুরু হয়। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে গুরুতর আহত হন শাহ মুল্লুক। পরে তাঁকে দিরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। শাহ মুল্লুক সাব্বির আহমদের পক্ষের লোক।

সংঘর্ষে উভয় পক্ষের আহত হন আরও ১০ জন। এর মধ্যে আবদুল বারিক (৫০), আবু বকর (৪৫), তোফাজ্জুল হক (৩৫), শামসুল ইসলাম (৬০), সফর আলী (৪২) ও সিরাজুল ইসলামকে (৩২) দিরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যরা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ভাটিপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মো. শাহ জাহান কাজী বলেন, এই দুই পক্ষের মধ্যে এর আগেও মারামারি হয়েছে। আজকের সংঘর্ষে শাহ মুল্লুক নামের একজন মারা গেলেন।

দিরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আশরাফুল ইসলাম বলেন, জমিসংক্রান্ত বিরোধের জেরেই এই ঘটনা ঘটেছে। এতে একজন মারা গেছেন। পুলিশ ঘটনাস্থলে আছে। এখন পরিস্থিতি শান্ত।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন