বিজ্ঞাপন

তৃতীয় শ্রেণির কর্মচারীদের পক্ষে অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তব্য দেন মো. আবদুল্লাহ আল মামুন, এস এম মাহফুজুর রহমান প্রমুখ। বক্তারা বলেন, তাঁরা দীর্ঘ ২২ মাস ধরে অ্যাডহক ভিত্তিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন শাখায় কর্মরত রয়েছেন। বিভিন্ন সময়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে তাঁদের চাকরি স্থায়ীকরণের দাবি জানিয়েছেন। কর্তৃপক্ষ বারবার আশ্বাস দিয়েছে। কিন্তু উল্লেখ্যযোগ্য কোনো পদক্ষেপ নেয়নি।

২০১৯ সালের আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন দপ্তরে বিভিন্ন পদে অ্যাডহক ভিত্তিতে ২২ জনকে নিয়োগ দেয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

আন্দোলনে নামা কর্মচারীরা বলেন, অনেকটা বাধ্য হয়েই তাঁরা এই অবস্থান কর্মসূচি পালন করছেন। দাবি আদায় না হলে পরে আরও কঠোর আন্দোলনের কর্মসূচি দেবেন বলে তাঁরা জানান।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, ২০১৯ সালের আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন দপ্তরে বিভিন্ন পদে অ্যাডহক ভিত্তিতে ২২ জনকে নিয়োগ দেয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন