বিজ্ঞাপন

অর্থ আত্মসাতের ঘটনায় বিশ্ববিদ্যালয়টির বর্তমান সহকারী পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) মো. ইয়াসিন আবু হাসান বাদী হয়ে সীতাকুণ্ড থানায় মামলা করেন। সেই মামলায় তৌফিকুরকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

মামলার এজাহারে ইয়াসিন আবু হাসান উল্লেখ করেন, তৌফিকুর রহমান ২০০৯ সাল থেকে বিশ্ববিদ্যালয়টির ভারপ্রাপ্ত সহকারী পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) পদে কর্মরত ছিলেন। চলতি বছরের ৬ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয়টিতে নতুন ট্রাস্টি বোর্ড দায়িত্ব গ্রহণ করে। এরপর থেকে তৌফিকুর রহমান বিশ্ববিদ্যালয়ে যাওয়া বন্ধ করে দেন। তাঁর সঙ্গে কর্তৃপক্ষ যোগাযোগ করলে তিনি চাকরি করবেন না বলে জানিয়ে দেন।


সীতাকুণ্ড থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সুমন বণিক বলেন, চাকরিকালে তৌফিকুর রহমান হিসাব শাখার ক্যাশিয়ার মো. শহিদুর রহমানের কাছ থেকে ৩৪ লাখ ৫২ হাজার ৬৫৫ টাকা তুলে নেন। এ টাকা জমা না দিয়ে তিনি কর্মস্থলে না আসায় তাঁর বিরুদ্ধে অর্থ আত্মসাতের মামলা করে কর্তৃপক্ষ।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন