বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

বুধবার মাওলানা ভাসানীর ৪৫তম মৃত্যুবার্ষিকীতে তাঁর কবরে ফুল দিতে এসে হামলার শিকার হন গণ অধিকার পরিষদের নেতা-কর্মীরা। এ ঘটনায় রেজা কিবরিয়াসহ অন্তত ২৫ জন আহত হন। তাঁরা এই হামলার জন্য মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগকে দায়ী করেন। ছাত্রলীগ পাল্টা অভিযোগ করে, তাদের নেতা-কর্মীদের ওপর গণ অধিকার পরিষদের কর্মীরা হামলা করেছিলেন। তবে আজ বিকেল পর্যন্ত কোনো পক্ষই থানায় মামলা করেনি বলে জানিয়েছেন টাঙ্গাইল সদর থানার পরিদর্শক (ইন্টেলিজেন্ট) মো. সালাউদ্দিন।

পুলিশের সামনেই হামলার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ হামলাকারীদের রক্ষার ভূমিকা পালন করেছে। দেশে যেখানে আইনের শাসন নেই, সেখানে মামলা করে কী হবে?
শাকিলউজ্জামান, গণ অধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় যুগ্ম আহ্বায়ক

গণ অধিকার পরিষদের কেন্দ্রীয় যুগ্ম আহ্বায়ক শাকিলউজ্জামান বলেন, পুলিশের সামনেই হামলার ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ হামলাকারীদের রক্ষার ভূমিকা পালন করেছে। দেশে যেখানে আইনের শাসন নেই, সেখানে মামলা করে কী হবে?

এদিকে ছাত্রলীগ কর্মীদের ওপর হামলার অভিযোগ এনে এবং এই ঘটনায় নুরুল হক ওরফে ভিপি নুরের বিচারের দাবিতে আজ দুপুরে মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ছাত্রলীগ। বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নিবিড় পাল বলেন, সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে তাঁরা মামলা করার ব্যাপারে আলোচনা করছেন। নেতাদের নির্দেশনা অনুযায়ী মামলার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন