বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

কয়েক দিন ধরে তিনি জ্বরে ভুগছিলেন। বাড়িতেই তিনি চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে গত শুক্রবার সকালে তাঁকে ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাঁর শারীরিক অবস্থার আরও অবনতি হয়। পরে চিকিৎসকেরা গতকাল শনিবার বিকেলে তাঁকে ঢাকায় স্থানান্তর করেন। ঢাকায় একটি বেসরকারি হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ সকাল সাড়ে সাতটার দিকে তিনি মারা যান।

রাজবাড়ী জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি জ্যোতি শংকর ঝন্টু বলেন, রেজাউলের লাশ রাজবাড়ীতে আনার প্রক্রিয়া চলছে। বিকেলে শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য তাঁর লাশ শহরের ভাজনচালা এলাকায় পার্টি অফিসে নেওয়া হবে। সন্ধ্যায় তাঁর নামাজে জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

জেলা কমিউনিস্ট পার্টির সভাপতি আবদুস সামাদ মিয়া বলেন, রেজাউল করিম ছিলেন একজন ব্যক্তিত্বসম্পন্ন মানুষ। পরিচ্ছন্ন মনের মানুষ। তাঁর মৃত্যুতে রাজবাড়ীবাসী একজন বলিষ্ঠ রাজনীতিবিদ হারানোর পাশাপাশি একজন তুখোড় বক্তাকে হারাল। শ্রমজীবী মানুষ হারালেন তাঁদের আপনজনকে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন