যানজটের কারণে ঘরমুখী মানুষ বিশেষ করে নারী ও শিশুদের সমস্যা বেশি হচ্ছে। গন্তব্যে যেতে দুই থেকে তিন গুণ বেশি সময় লাগছে।

টাঙ্গাইল শহরের বাইপাস এলাকায় বগুড়াগামী বাসের যাত্রী শফিকুল ইসলাম জানান, রাত ১২টায় ঢাকা থেকে রওনা হয়ে ১০ ঘণ্টায় টাঙ্গাইল পর্যন্ত এসেছেন। ঢাকা থেকে রওনা হয়ে একটু পরপরই যানজটে পড়তে হচ্ছে।

মহাসড়কে আটকে পড়া নারী ও শিশুদের দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে বেশি। ঘণ্টার পর ঘণ্টার সড়কে থাকা নারীদের প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে আশপাশের বাড়িতে যেতে হচ্ছে।

রাজশাহীগামী মাইক্রোবাসযাত্রী জাহাঙ্গীর হোসেন জানান, প্রতিবছর ঈদে বাড়ি যেতে তাদের এমন দুর্ভোগে পড়তে হয়। মহাসড়কে যানজটে পড়ে ঈদের আনন্দ নষ্ট হয়ে যায়।

সকালে মহাসড়ক পরিদর্শন করে জেলা প্রশাসক মো. আতাউল গনি বলেন, ‘যানজট নিরসনে মহাসড়কে সাত শতাধিক পুলিশ দায়িত্ব পালন করছে। তারপরও যানজটে মানুষের ভোগান্তি হওয়ায় জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে দুঃখ প্রকাশ করছি।’

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন