বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
default-image

এ বিষয়ে প্যানেল মেয়র শাহিন উদ্দীন প্রথম আলোকে বলেন, ‘রেজাউলের এলাকায় ডিশ লাইনের ব্যবসা নিয়ে এক ব্যক্তির সঙ্গে বিরোধ চলছে। এ নিয়ে পৌরসভার মেয়রের কাছে অভিযোগও এসেছে। রেজাউলের ধারণা এতে আমার সমর্থন আছে। এমন ধারণায় এত বড় হুমকি মেনে নেওয়া যায় না। তাই থানায় লিখিতভাবে জিডি করেছি। বিষয়টি সংসদ সদস্য মাহবুব উল আলম হানিফ, মেয়র আনোয়ার আলীসহ পুলিশ সুপারকে মোবাইলে জানিয়েছি।’

হত্যার হুমকির বিষয়টি মিথ্যা বলে দাবি করে কাউন্সিলর মীর রেজাউল ইসলাম প্রথম আলোকে বলেন, ‘আজকে (বুধবার) শাহিন উদ্দীনের সঙ্গে দেখা ও কথা হয়নি। তিনি কেন জিডি করলেন, জানি না।’

কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাব্বিরুল আলম বলেন, থানায় বিকেলে একটি জিডি হয়েছে। সেটি তদন্তের জন্য একজন উপপরিদর্শককে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এরপর প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন