আজ বুধবার বেলা আড়াইটায় মাদারীপুরের বাংলাবাজারে প্রধানমন্ত্রীর জনসভাস্থল পরিদর্শনে এসে এসব কথা বলেন র‍্যাব প্রধান। আবদুল্লাহ আল মামুন বলেন, গোয়েন্দা তথ্য সাইবার মনিটরিংসহ অন্যান্য তথ্য বিশ্লেষণপূর্বক তাঁরা জানতে পেরেছেন স্বপ্নের পদ্মা সেতুর উদ্বোধনকে কেন্দ্র করে কোনো ধরনের হামলা হওয়ার হুমকিও নেই।

ভার্চ্যুয়াল জগতে পদ্মা সেতুকে নিয়ে উসকানিমূলক গুজব, মিথ্যা তথ্য ছড়ানো প্রতিরোধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। সারা দেশে র‍্যাবের বিভিন্ন সাইবার টিম কাজ করছে। কেউ সাইবার অপরাধ করলে তাঁর বিরুদ্ধে সঙ্গে সঙ্গে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

পদ্মা সেতুর অনুষ্ঠান ঘিরে পর্যাপ্তসংখ্যক র‍্যাব সদস্য মোতায়েন থাকবে জানিয়ে র‍্যাবের মহাপরিচালক বলেন, ‘কৌশলগত সব স্থানে আমাদের চেকপোস্ট ও টহল থাকবে। আমরা এখন থেকেই নিরাপত্তা তৎপরতা শুরু করেছি। অনুষ্ঠান শেষ হওয়া পর্যন্ত র‍্যাব এ তৎপরতা থাকবে। উদ্বোধন অনুষ্ঠান চলাকালে সার্বিক নিরাপত্তার জন্য র‍্যাবের কন্ট্রোলরুম স্থাপন করা হয়েছে। স্ট্রাইকিং ফোর্স, মোটরসাইকেল পেট্রল, বোট পেট্রল, অবজারভেশন ফোর্স থাকবে সার্বক্ষণিক। সেতুর দুই প্রান্তসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানে র‍্যাবের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট থাকছে। আমাদের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য প্রস্তুত থাকবে। সেতুর দুই প্রান্তে র‍্যাবের স্পেশাল কমান্ড টিম প্রস্তুত থাকবে। পাশাপাশি আমাদের হেলিকপ্টারও প্রস্তুত থাকবে।’

এসব নিরাপত্তা ব্যবস্থার পাশাপাশি সেতুর দুই প্রান্তেই র‍্যাবের মেডিকেল টিম থাকবে। সেখানে র‍্যাবের সদস্য কিংবা জনসাধারণ কারো অসুস্থতা দেখা দিলে তাৎক্ষণিক চিকিৎসার ব্যবস্থা থাকবে বলে জানান আবদুল্লাহ আল মামুন। পদ্মা সেতুর উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আগত দর্শনার্থীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, সড়কপথে ও নৌপথে লঞ্চে যাঁরা উদ্বোধন অনুষ্ঠান দেখতে আসবেন, তাঁদের জন্য প্ল্যান করা হয়েছে। তাঁরা কীভাবে, কোথায় নামবেন, সব বিষয় ম্যাপ করে প্রেসরিলিস দেওয়া হবে।

র‍্যাবের মহাপরিচালক বলেন, ‘দেশের ১৮ কোটি মানুষের পদ্মা সেতু উদ্বোধনের অপেক্ষায় প্রহর গুনছে। যাঁরা আনন্দ উল্লাস করে পদ্মা সেতুর উদ্বোধন অনুষ্ঠান দেখতে আসতে চান, তাঁরা নির্ভয়ে চলে আসুন। অনুষ্ঠান ঘিরে র‍্যাবের নিরাপত্তা অটুট থাকবে। আমাদের কন্ট্রোল রুম থেকে সমগ্র পরিস্থিতি মনিটর করা হবে।’

এ সময় র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন, র‍্যাব-৮ মাদারীপুর ক্যাম্পের কোম্পানি অধিনায়ক স্কোয়াড্রন লিডার মোহাম্মদ সাদেকুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন