default-image

নওগাঁর মান্দা উপজেলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি বিকৃত করে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে হেলাল কাজী (৩৫) নামের এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল বুধবার রাতে অভিযান চালিয়ে উপজেলার বড়বেলালদহ গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়।
হেলাল কাজী উপজেলার কুসুম্বা ইউনিয়নের বড়বেলালদহ গ্রামের লোকমান কাজীর ছেলে।
প্রধানমন্ত্রীর ছবি বিকৃত করে সেই ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগে কুসুম্বা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আমিনুল ইসলাম বাদী হয়ে বুধবার বিকেলে হেলাল কাজীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে থানায় মামলা করেন। মামলার পর বুধবার রাতে নিজ বাড়ি থেকে হেলালকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

বিজ্ঞাপন

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, হেলাল কাজী প্রযুক্তির মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মুখে দাড়ি-গোঁফ লাগিয়ে এবং ছবির নিচে হজরত শেখ হাসিনা লিখে তা ফেসবুকে পোস্ট করেন। ওই ছবি বুধবার সকাল থেকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মানহানিসহ দলীয় ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ন হয়েছে উল্লেখ করে তাঁর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করে অভিযোগ করা হয়।
মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহিনুর রহমান বলেন, গ্রেপ্তার যুবক হেলাল কাজীকে বৃহস্পতিবার দুপুরে আদালতে হাজির করা হয়। পরে আদালতের নির্দেশে তাঁকে কারাগারে পাঠানো হয়। তিনি আরও বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তার হেলাল কাজী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছবি বিকৃত ও সেটি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার কথা স্বীকার করেছেন।

মন্তব্য পড়ুন 0