default-image

প্রচারণা শুরুর দিন থেকেই চলছিল বাগ্‌যুদ্ধ। পথসভা থেকে শুরু করে বিভিন্নভাবে একে অপরের বিরুদ্ধে বিষোদগার করে বক্তব্য দেওয়া হয়েছিল। হামলা, ভাঙচুর ও মামলাও হয়। তীব্র প্রতিযোগিতা চলছিল কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় আওয়ামী লীগ ও জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের (জাসদ) মধ্যে। তবে শেষ হাসি হাসল জাসদ।

২ হাজার ৪১৭ ভোটের ব্যবধানে আওয়ামী লীগের প্রার্থী বর্তমান মেয়র শামীমুল ইসলাম ছানাকে হারিয়ে বিজয়ী হন জাসদ মনোনীত প্রার্থী আনোয়ারুল কবির টুটুল। মশাল প্রতীকে শুধু তিনিই মেয়র পদে নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি ভেড়ামারা পৌরসভায় মেয়র পদে বিজয়ী হলেন। শামীমুল ইসলাম পরপর দুবার মেয়র হিসেবে আছেন।

বিজ্ঞাপন

শনিবার রাত আটটায় ভেড়ামারা পৌরসভা নির্বাচনে রিটার্নিং কর্মকর্তা একই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল মারুফ ফলাফল ঘোষণা করেন। এতে আওয়ামী লীগের শামীমুল ইসলাম পান ৫ হাজার ৬১৩ ভোট। আনোয়ারুল কবির পেয়েছেন ৮ হাজার ৩০ ভোট।

তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় ভেড়ামারা জাসদ যুব জোটের সহসভাপতি তরুণ নেতা আনোয়ারুল কবির প্রথম আলোকে বলেন, ‘এ বিজয় দুর্নীতির বিরুদ্ধের বিজয়। আমি কথা দিচ্ছি, প্রচারণার সময় যেসব প্রতিশ্রুতি জনগণকে দেওয়া হয়েছে, তা শতভাগ নিশ্চিত করা হবে।’

নাম প্রকাশ না করার শর্তে জেলা আওয়ামী লীগের এক নেতা প্রথম আলোকে বলেন, শামীমুল ইসলামের আচরণগত কিছু সমস্যার কারণে ভেড়ামারা উপজেলা আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতা নির্বাচনী প্রচারণায় তেমন সক্রিয় ছিলেন না। ফলে এমনটি হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন