জানতে চাইলে মাদারীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) চাইলাউ মারমা প্রথম আলোকে বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, তিনি আত্মহত্যা করেছেন। কামরুল তাঁর টেবিলে একটি চিরকুটও লিখে গেছেন। সেখানে তিনি তাঁর মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী নয় বলে উল্লেখ করেছেন। তবুও এটি হত্যা, নাকি আত্মহত্যা, বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ।’

কামরুল ইসলাম দেড় মাস আগে চরমুগরিয়া খাদ্যগুদামে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হিসেবে যোগ দেন। এর আগে তিনি রাজৈর উপজেলা খাদ্য অফিসে পরিদর্শক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন