default-image

যুক্তরাজ্য থেকে সিলেটে আসা ১৬৫ যাত্রীকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশনা দিয়েছে ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে স্বাস্থ্য বিভাগের স্থাপিত চিকিৎসক দল। আজ বৃহস্পতিবার সকাল সোয়া নয়টার দিকে যুক্তরাজ্যের রাজধানী লন্ডনের হিথরো বিমানবন্দর থেকে ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২০২ জন যাত্রী নিয়ে অবতরণ করে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইট। ওই ফ্লাইট থেকে সিলেটে ১৬৫ জন যাত্রী নামেন।

যুক্তরাজ্যে সম্প্রতি করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) নতুন ধরন (স্ট্রেইন) শনাক্ত হওয়ার পর অনেক দেশ দেশটির সঙ্গে ফ্লাইট চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। তবে সচল রয়েছে বাংলাদেশের সঙ্গে বিমান চলাচল।

ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সূত্রে জানা গেছে, আজ সকাল সোয়া নয়টার দিকে যুক্তরাজ্যের হিথরো বিমানবন্দর থেকে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২০২ জন যাত্রী নিয়ে অবতরণ করে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইট। এর মধ্যে ১৬৫ জন যাত্রী সিলেটে নামেন। বাকি ৩৭ জন যাত্রী নিয়ে বিমানটি সকাল সোয়া ১০টার দিকে ঢাকা শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের উদ্দেশ্যে ওসমানী বিমানবন্দর ত্যাগ করে।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল সোয়া নয়টার দিকে যুক্তরাজ্যের রাজধানী লন্ডনের হিথরো বিমানবন্দর থেকে ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ২০২ জন যাত্রী নিয়ে অবতরণ করে বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইট। ওই ফ্লাইট থেকে সিলেটে ১৬৫ জন যাত্রী নামেন।
বিজ্ঞাপন

সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ব্যবস্থাপক হাফিজ আহমদ প্রথম আলোকে বলেন, যুক্তরাজ্য থেকে সিলেটে নামা বিমানের ১৬৫ জন যাত্রীর করোনা নেগেটিভ সনদ ছিল। বিমানবন্দরে অবতরণের পর তাঁদের করোনা নেগেটিভ সনদগুলো যাচাই-বাছাই করা হয়। এ সময় ছয়জনের সনদ নিয়ে কিছুটা সন্দেহ হলে সেগুলো আরও বিস্তারিত যাচাই-বাছাই করা হয়। পরে সেগুলো সঠিক বলে প্রমাণ পাওয়া যায়। পরে যুক্তরাজ্যফেরত সব যাত্রীকে হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করার নির্দেশনা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

হাফিজ আহমদ বলেন, যুক্তরাজ্যের সঙ্গে বিমান চলাচল নিয়ে নতুন কোনো নির্দেশনা তাঁদের কাছে আসেনি। তাই নিয়মিত যুক্তরাজ্য ও সিলেটের মধ্যে বিমান চলাচল অব্যাহত আছে।

বিমানবন্দর সূত্রে জানা গেছে, প্রতি সপ্তাহে বাংলাদেশ বিমানের দুটি ফ্লাইট যুক্তরাজ্য থেকে সিলেট অবতরণ করে। এ ছাড় প্রতি বুধবার একটি ফ্লাইট সিলেট থেকে যুক্তরাজ্যে যায়। চলতি মাসে আজ বৃহস্পতিবার পর্যন্ত যুক্তরাজ্য থেকে সিলেটে এসেছেন ১ হাজার ২০ জন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন