বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

প্রসঙ্গত, গত ২৪ সেপ্টেম্বর রাতে হারাগাছের সিগারেট কোম্পানি মোড় এলাকা থেকে মাদক সেবন ও মাদক ব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে পারভেজকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় এএসআই পেয়ারুল ইসলামকে পারভেজ ছুরিকাঘাত করেন। পরদিন সকালে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় পেয়ারুল মারা যান। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে হত্যা ও মাদক আইনে পৃথক দুটি মামলা করেছে।

নিহত পেয়ারুল ইসলাম কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার বিদ্যানন্দ ইউনিয়নের চন্দ্রপাড়া গ্রামের আবদুর রহমানের ছেলে। তিনি স্ত্রীসহ দুই শিশু রেখে গেছেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন