default-image

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রপ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি বিভাগের অধ্যাপক মু. আলী আসগর চিঠির মাধ্যমে হত্যার হুমকি পাওয়ার অভিযোগে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে চিঠি পাওয়ার পর সন্ধ্যায় নগরের বোয়ালিয়া থানায় তিনি জিডিটি করেন। আজ শুক্রবার বিকেলে বোয়ালিয়া থানার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপপরিদর্শক (এসআই) সুলতানা জিডির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জিডিতে অধ্যাপক আলী আসগর উল্লেখ করেন, তিনি বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে নগরের সাগরপাড়ায় নিজ বাসভবনের লেটারবক্সে জীবননাশের হুমকি দেওয়া একটি বেনামী চিঠি পান। ওই চিঠিতে বলা হয়, তাঁর করা মামলায় কোনো লাভ হবে না। তাঁর কোনো লোকের চাকরিও হবে না। চিঠিতে তাঁকে চুপ থাকতে বলা হয়।

অধ্যাপক আলী আসগর বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে নগরের সাগরপাড়ায় নিজ বাসভবনের লেটারবক্সে জীবননাশের হুমকি দেওয়া একটি বেনামী চিঠি পান।

জিডিতে তিনি আরও বলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রপ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি বিভাগের শিক্ষক নিয়োগ বিষয়ে তিনি ২০১৯ সালের ১৮ আগস্ট হাইকোর্টে রিট পিটিশন করেন। ওই পিটিশনের ভিত্তিতে ২০২০ সালের ২৯ জানুয়ারি হাইকোর্টের রায়ে বিভাগের তিনজন শিক্ষকের নিয়োগ বাতিল হয়। নিয়োগ বাতিল হওয়া তিনজন শিক্ষক হচ্ছেন শামসুন নাহার, মো. মুখতার হুসাইন ও রেজভী আহমেদ ভূঁইয়া। রিট পিটিশনটি বর্তমানে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে বিচারাধীন।

এর আগে ৬ ডিসেম্বর অধ্যাপক আলী আসগর হত্যার হুমকি পাওয়ার অভিযোগে মতিহার থানায় আরেকটি জিডি দায়ের করেছিলেন।

বিজ্ঞাপন
জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন