default-image

ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈল পৌর নির্বাচনে আচরণবিধি অমান্য করে নেতা-কর্মী ও সমর্থকদের নিয়ে শোভাযাত্রা-মহড়া করে আওয়ামী লীগ, বিএনপিসহ স্বতন্ত্র প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন আজ রোববার বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত মেয়র পদে ১২ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেন।

নির্বাচন আচরণবিধি অনুযায়ী, কোনো প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সময় মিছিল-সমাবেশ ও মহড়া করতে পারবেন না। একই সঙ্গে সর্বোচ্চ পাঁচজনকে নিয়ে তিনি নির্বাচন কার্যালয়ে প্রবেশ করতে পারবেন।

কয়েকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, রোববার দুপুর ১২টার দিকে কয়েক শ মানুষের শোভাযাত্রা নিয়ে উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দেন উপজেলা যুবলীগের অর্থবিষয়ক সম্পাদক আবদুল খালেক। বেলা একটার দিকে দলের কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে মিছিল করে বিএনপির মনোনীত প্রার্থী মাহমুদুন নবী মনোনয়নপত্র জমা দেন। এ সময় উপজেলা বিএনপির সভাপতি আইনুল হক, পাশের উপজেলা পীরগঞ্জ বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জিয়াউল ইসলাম, হোসেনগাঁও ইউপি চেয়ারম্যান মাহবুব আলম তাঁর সঙ্গে ছিলেন। একই সময় সমর্থকদের নিয়ে মহড়া দিয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক নেতা রুকুনুল ইসলাম মনোনয়নপত্র জমা দেন।

বেলা দেড়টার দিকে কয়েক শ নারী, পুরুষ, শিশুসহ সমর্থকদের মিছিল নিয়ে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও বর্তমান পৌর মেয়র আলমগীর সরকার মনোনয়নপত্র জমা দেন।

বিজ্ঞাপন

বেলা দুইটার দিকে উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয় থেকে নৌকা প্রতীক হাতে শোভাযাত্রা করে কয়েক শ নেতা-কর্মীর শোভাযাত্রা নিয়ে উপজেলা নির্বাচন কার্যালয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দিতে আসেন আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী মোস্তাফিজুর রহমান। এ সময় সাধারণ সম্পাদক মো. তাজউদ্দিন ও পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর সরকারসহ সহযোগী সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

default-image

জানতে চাইলে উপজেলা বিএনপির সভাপতি আইনুল হক বলেন, সব প্রার্থীই শোভাযাত্রা-মহড়া করে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। তাঁদের যদি আইন ভঙ্গ না হয়, তবে বিএনপির ভঙ্গ হবে কেন?

পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর সরকার বলেন, মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার কথা জানতে পেরে দলের সমর্থকদের আটকে রাখা যায়নি। দু-চারজন করে সমর্থক জড়ো হতে হতে বিশাল আকার ধারণ করে। তবে জমা দেওয়ার সময় হাতেগোনা কয়েকজন মিলে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়া হয়েছে।

রিটার্নিং কর্মকর্তা ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সোহেল সুলতান জুলকার নাইন কবির বলেন, কার্যালয়ের বাইরে কে কীভাবে এসেছেন, তা দেখার সুযোগ ছিল না। তবে ভেতরে প্রার্থীদের সঙ্গে নির্দিষ্টসংখ্যক সমর্থকই এসেছেন।

নির্বাচনে কাউন্সিলর পদে ৩০ জন, সংরক্ষিত নারী আসনে ১২ জন প্রার্থী মনোনয়ন ফরম দাখিল করেছেন। রানীশংকৈল পৌরসভায় মোট ১৪ হাজার ৬২৪ জন ভোটার।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন