default-image

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম কাজিরখীল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্রের সামনের সড়কে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে গুলিবিদ্ধসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়েছেন। এর মধ্যে পুলিশ সদস্য রয়েছেন দুজন।

আজ শনিবার দুপুর ১২টার দিকে কাউন্সিলর প্রার্থী আনোয়ার হোসেন (উটপাখি প্রতীক) ও মামুনুর রশিদের (পাঞ্জাবি) সমর্থকদের মধ্যে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে চট্টগ্রাম বিভাগের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন।

আহত ব্যক্তিদের মধ্যে আলমগীর হোসেন (৫৫), মো. আনোয়ার হোসেন (২২), মমিনুল হক (৩০), মো. ফয়েজ (৪৫) ও সাইফুর রহমান (৩৫) প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন। আহত দুই পুলিশ সদস্য কেন্দ্রের পাশের আনসার ক্যাম্পে প্রাথমিক চিকিৎসা নেন। আহত অপর তিনজনের নাম প্রাথমিকভাবে জানা যায়নি।

বিজ্ঞাপন

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, পশ্চিম কাজিরখীল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ব্যালট পেপারে সিল মারাকে কেন্দ্র করে ওই দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে তর্কবিতর্ক হয়। একপর্যায়ে তাঁরা কেন্দ্রের বাইরে গিয়ে সড়কে অবস্থান নেন। এ সময় দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। পুলিশ ধাওয়া দিলে তাঁরা পুলিশের ওপর পাল্টা–হামলা চালান। পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ ৯০টি ফাঁকা গুলি ছোড়ে। সেখানে আগে থেকেই উপস্থিত ছিলেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আখতার জাহান।

অতিরিক্ত জেলা পুলিশ সুপার (প্রশাসন) রিয়াজুল কবির বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেছে। এ সময় ৯০ রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়েছে। পরিস্থিতি এখন পুলিশের নিয়ন্ত্রণে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন