বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, আজ সকাল ১০টার দিকে পদ্মা নদীতে শিমুলিয়া লঞ্চঘাটের বিপরীত পাশে একটি ভাসছিল। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও বিআইডব্লিউটিএর ডুবুরিরা লাশটি উদ্ধার করেন।

আশরাফুল আলমের ছেলে আবদুল্লাহ আল মামুনের বরাত দিয়ে মাওয়া নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির পরিদর্শক আবু তাহের বলেন, গত শুক্রবার বাবা-ছেলে বাসে করে ঢাকা থেকে শিমুলিয়া ঘাটে আসেন। তাঁরা লঞ্চে করে খুলনার গ্রামের বাড়িতে যাচ্ছিলেন। বাবার শরীরটা একটু খারাপ লাগছিল। তিনি মুখে পানি দেওয়ার জন্য গিয়েছিলেন। তখন তিনি লঞ্চ থেকে পানিতে পড়ে যান।

আবু তাহের আরও বলেন, আশরাফুল আলমের নিখোঁজের ঘটনায় গতকাল শনিবার লৌহজং থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়েছিল। পরিবারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে লাশ তাঁদের কাছে বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন