বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘দীর্ঘ ১৭ মাস পর খোলা হচ্ছে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মেনেই শ্রেণিকক্ষে পাঠদান হবে। স্বাস্থ্যবিধি মেনে পাঠদান করলে সংক্রমণ বাড়ার আশঙ্কা কম। আশা করছি, সংক্রমণ বাড়বেও না। প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে হবে। তারপরও সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিলে প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। তারপরও যদি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিতে হয়, সেটা করতেও আমরা দ্বিধাবোধ করব না।’

দীপু মনি আরও বলেন, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আসার কারণের কেউ করোনায় সংক্রমিত হবে না। কারণ, সেখানে সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি মানা হবে। কিন্তু অভিভাবকদের সতর্ক থাকতে হবে। তাঁদের উদ্দেশে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, বাড়িতে যদি পরিবারের কোনো সদস্য বা শিক্ষার্থীদের মধ্যে উপসর্গ থাকে, তাহলে ওই শিক্ষার্থীকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পাঠানো যাবে না।

পরে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি প্রধান অতিথি হিসেবে জামালপুর পৌর আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে যোগ দেন। জামালপুর জেলা শহরের ফৌজদারি মোড়ে এই সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন