জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নূরুল ইসলাম বলেন, ‘বিএনপি গণমানুষের দল। আমরা মানুষের কষ্টের কথা বলছি। কিন্তু আমাদের মাঠে নামতে দেওয়া হচ্ছে না। শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতেও পুলিশ বাধা দিয়েছে। বাধা দিয়ে বিএনপিকে দমিয়ে রাখা যাবে না।’

তবে জানতে চাইলে সুনামগঞ্জ সদর থানা পরিদর্শক (তদন্ত) মনিরুজ্জামান খান বলেন, সদর থানা–পুলিশ ঘটনাস্থলে নিরাপত্তার দায়িত্বে ছিল। তবে পুলিশ বিএনপির মিছিলে বাধা দেয়নি। তাঁরা নিজেরাই সেখান থেকে সরে গেছে।

এর আগে সমাবেশে বক্তারা বলেন, দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন ঊর্ধ্বগতিতে দেশের মানুষ চরম বিপাকে আছে। সবকিছু মানুষের ক্রয়ক্ষমতার বাইরে চলে গেছে। মানুষ অসহায়। বাজার নিয়ন্ত্রণে সরকার সম্পূর্ণ ব্যর্থ। আওয়ামী লীগের ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটের কারণেই জিনিসপত্রের দাম বাড়ছে। তাঁদের লুটপাটের কারণেই দেশের এই করুণ অবস্থা। দেশের মানুষ এই ব্যর্থ সরকারের কবল থেকে মুক্তি চায়।

জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক নূরুল ইসলামের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন সংগঠনের জেলা কমিটির সভাপতি ও সাবেক সংসদ সদস্য কলিম উদ্দিন আহমদ, সহসভাপতি নাদীর আহমদ, মল্লিক মইন উদ্দিন আহমদ, আবুল মনসুর মো. শওকত, মো. শেরেনূর আলী, আ ত ম মিসবাহ, রেজাউল হক, আনসার উদ্দিন প্রমুখ।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন