আহত ব্যক্তিরা হলেন নোয়াখালী পৌরসভার গোপাই এলাকার মো. সোহাগ (২৪), সদর উপজেলার কাদিরহানিফ ইউনিয়নের মো. আনোয়ার হোসেন (২৩)। তাঁরা নোয়াখালীর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পুলিশ ও স্থানীয় লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সোহাগ ও আনোয়ার হাতিয়ার চেয়ারম্যানঘাট এলাকায় ব্যবসাসংক্রান্ত কাজে গিয়েছিলেন। কাজ শেষে তাঁরা এক মোটরসাইকেলে জেলা শহরে ফিরছিলেন। এদিকে মোহাম্মদ পিয়াস আরেকটি মোটরসাইকেল চালিয়ে নোয়াখালী জেলা শহর থেকে সুবর্ণচরের দিকে যাচ্ছিলেন। সন্ধ্যা সাতটার দিকে সোহাগ ও আনোয়ার সুবর্ণচরের হারিছ চৌধুরীর বাজার এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা পিয়াসের মোটরসাইকেলের সঙ্গে তাঁদের মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে তিনজনই সড়কের ওপর ছিটকে পড়ে আহত হন।

পরে আশপাশের লোকজন তাঁদের উদ্ধার করে নোয়াখালীর ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক পিয়াসকে মৃত ঘোষণা করেন।

জানতে চাইলে চরজব্বর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেবপ্রিয় দাশ প্রথম আলোকে বলেন, লাশ হাসপাতালের মর্গে রাখা আছে। এ ব্যাপারে নিহত যুবকের পরিবারের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে এ ঘটনায় থানায় কেউ লিখিত অভিযোগ করেননি।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন