রাজশাহী মহানগর পুলিশ ও কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের মহানগর কমিটির উদ্যোগে শহীদ মামুন মাহমুদ পুলিশ লাইনস স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে মাদক ও জঙ্গিবিরোধী সমাবেশের আয়োজন করা হয়। সমাবেশে আইজিপি বলেন, জীবন বাজি রেখে বীর মুক্তিযোদ্ধারা এই দেশ এনে দিয়েছেন। এ দেশে আবার যদি কেউ আগুন–সন্ত্রাসের চেষ্টা করে, পুলিশ ও অন্যান্য বাহিনী সেই অপপ্রয়াস রুখে দিতে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ। দেশকে সন্ত্রাসের রাষ্ট্র হতে দেওয়া যাবে না।

চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন বলেন, এখন পুলিশের চাকরিপ্রার্থীদের ডোপ টেস্ট করা হচ্ছে। রিপোর্ট পজিটিভ হলে পুলিশে তাঁর চাকরি হচ্ছে না। পর্যায়ক্রমে সব চাকরির ক্ষেত্রে ডোপ টেস্ট করা হবে। অনেক সময় পুলিশের কোনো কোনো সদস্যের ব্যাপারেও তথ্য আসে। সেই রকম তথ্য আমাদের কাছে এলে আমরা তাঁকেও ছাড় দেব না।’

সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন বিভাগীয় কমিশনার জি এস এম জাফরউল্লাহ, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য গোলাম সাব্বির সাত্তার, মহানগর কমিউনিটি পুলিশিং ফোরামের আহ্বায়ক আবদুল খালেক, রাজশাহী রেঞ্জের উপমহাপরিদর্শক (ডিআইজি) আবদুল বাতেন, জেলা প্রশাসক আবদুল জলিল, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোহাম্মদ আলী, সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল ওয়াদুদ প্রমুখ।

মহানগর পুলিশের কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিকের সভাপতিত্বে সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন সাবেক প্রতিমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা জিনাতুন নেসা তালুকদার ও র‍্যাব-৫-এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল রিয়াজ শাহরিয়ার।