এ শোভাযাত্রার মূল উদ্যোক্তা মাসুদুর রহমান বলেন, আর্জেন্টিনা তাঁর প্রিয় দল, মেসি তাঁর প্রিয় খেলোয়াড়। প্রিয় দলকে ভালোবেসে তিনি ১ হাজার ৬০ ফুট দৈর্ঘ্যের এ পতাকা বানিয়েছেন। এতে খরচ হয়েছে প্রায় ৩০ হাজার টাকা। আগামী ২২ নভেম্বর আর্জেন্টিনা দলের খেলা। প্রিয় দলকে শুভেচ্ছা জানিয়ে এ আনন্দ শোভাযাত্রার আয়োজন করেছেন তিনি। যেহেতু এবার মেসির শেষ বিশ্বকাপ, তাই এ বিশ্বকাপ বিশেষ। আর্জেন্টিনা যদি এ বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হতে পারে, তাহলে পাঁচটি গরু জবাই করে বড় পরিসরে ভোজের আয়োজন করবেন বলে জানান তিনি।

কথা হয় শোভাযাত্রায় অংশ নেওয়া সৌরভ, শুভ, সুমনসহ আরও অনেকের সঙ্গে। সবাই জানান, ছোটবেলা থেকেই তাঁরা মেসির ভক্ত, আর্জেন্টিনার সমর্থক। তাই খুব সকালে অনেক দূর থেকে এসে তাঁরা এ শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণ করেছেন। তাঁদের দাবি, সরিষাবাড়ীতে প্রায় ৭৫ শতাংশ মানুষ আর্জেন্টিনার সমর্থক। সবার প্রত্যাশা, এবার বিশ্বকাপ আর্জেন্টিনার ঘরেই উঠবে।

পৌরসভার স্টেশন এলাকার আর্জেন্টিনা ফুটবল দলের ভক্ত রোকনুজ্জামান বলেন, ‘পৌর এলাকায় বিভিন্ন এলাকায় শোভাযাত্রা করেছি। দলের জন্য আনন্দ করেছি। সামনে আরও আনন্দ করব।’ শিমলাবাজারের ব্যবসায়ী মুকুল শিকদার বলেন, ‘এত বড় পতাকা কখনো দেখিনি। শত শত সমর্থক পতাকা নিয়ে মিছিল করেছে।’

কাতার বিশ্বকাপ শুরু হতে আর মাত্র দুদিন। ২০ নভেম্বর মরুর বুকে উঠবে ক্রীড়াজগতের এ জাঁকজমকপূর্ণ আসরের পর্দা। বিশ্বকাপের ৯২ বছরের ইতিহাসে এবারই প্রথমবারের মতো বছরের মাঝামাঝি সময়ের বদলে নভেম্বর-ডিসেম্বরে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ফুটবলের এই মহারণ। মধ্যপ্রাচ্যের কোনো দেশে প্রথম অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে ফুটবল বিশ্বকাপ। এ আসরে ৩২ দল অংশ নেবে।