জেসমিন বেগম সাঘাটা উপজেলার মথরপাড়া গ্রামের কৃষক আহসান কবিরের স্ত্রী।

আহসান কবির প্রথম আলোকে বলেন, গতকাল বৃহস্পতিবার গভীর রাতে তাঁর স্ত্রীর প্রসব ব্যথা ওঠে। এরপর তাঁকে অটোরিকশায় গাইবান্ধা শহরের একটি ক্লিনিকে নেওয়া হয়। সেখানে ভোরে দুই কন্যা ও এক ছেলেসন্তানের জন্ম হয়।

প্রথমবারের মতো বাবা হতে পেরে আনন্দিত আহসান কবির। তিনি বলেন, দুই বছরের দাম্পত্য জীবন তাঁদের। স্ত্রী ও নবজাতক সুস্থ আছে, এটাই আল্লাহর কাছে বড় পাওয়া।

ক্লিনিকের ব্যবস্থাপক কাঞ্চন কুমার প্রথম আলোকে বলেন, তিন নবজাতকের ওজন একটু কম। তাদের মধ্যে ছেলেশিশুটি সামান্য অসুস্থ্। তাই উন্নত চিকিৎসার জন্য তাদের রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে, তবে প্রসূতি নারী ক্লিনিকে সুস্থ রয়েছেন।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন