নিহত নিহার মামা মো. রাকিব উদ্দিন প্রথম আলোকে বলেন, বেলা সাড়ে ১১টার দিকে বিদ্যালয় ছুটির পর নিহা ক্লাস থেকে বেরিয়ে সড়ক পার হওয়ার সময় দ্রুতগতির একটি যাত্রীবাহী টমটম তাকে চাপা দেয়। এতে সে মারাত্মকভাবে আহত হয়। আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে আহত নিহাকে দ্রুত উদ্ধার করে এবং ঘাতক টমটমটিকে আটক করে। পরে মুমূর্ষু অবস্থায় নিহাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক হালিমা আক্তার প্রথম আলোকে বলেন, সড়ক দুর্ঘটনার শিকার নিহা আক্তার নামের একটি শিশুকে দুপুর ১২টার দিকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে। পরে তার স্বজনেরা লাশ বাড়িতে নিয়ে গেছেন।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আমির হোসেন প্রথম আলোকে বলেন, তিনি আইনশৃঙ্খলাবিষয়ক একটি বৈঠকে রয়েছেন। ঘটনাটি সম্পর্কে তিনি অবগত নন। খোঁজ নিয়ে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন