সাইফুল ইসলাম বলেন, গতকাল বুধবার ডাহিয়া এলাকার একটি মাছ ধরার ফাঁদে ২০ কেজি ওজনের কাছিম পান স্থানীয় মৎস্যজীবী সুজা ও সামাউল ইসলাম। পরে তাঁদের কাছ থেকে ২০ হাজার টাকায় কাছিমটি কিনে নেন স্থানীয় সেলুন ব্যবসায়ী শ্রী সুবেন। খবর পেয়ে আজ সকালে চলনবিল জীববৈচিত্র্য রক্ষা কমিটির সদস্যরা ডাহিয়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে কাছিমটি উদ্ধার করেন।

রাজশাহী বন অঞ্চলের বন সংরক্ষক মোল্লা রেজাউল করিম বলেন, উদ্ধার হওয়া কাছিমটি গঙ্গা কাছিম হিসেবে পরিচিত। প্রকৃতির ভারসাম্য রক্ষায় এটি সংরক্ষণ করা দরকার। যদি এটি হারিয়ে যায়, তাহলে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট হবে। কাছিমটি রাজশাহী বন্য প্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ অঞ্চলের বিভাগীয় কর্মকর্তার কাছে হস্তান্তর করা হবে।

জেলা থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন