শেরপুর পৌরসভার হাজিপুর এলাকার ওয়ার্ড কাউন্সিলর শুভ ইমরান প্রথম আলোকে বলেন, ময়নাতদন্তের পর লাশ দুটি পুলিশের মাধ্যমে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এই দম্পতি কী কারণে বিষাক্ত গ্যাস ট্যাবলেট খেয়েছিলেন, তা এখনো সবার অজানা।

দম্পতির মৃত্যুর সঠিক কারণ নিশ্চিত করতে পুলিশ অনুসন্ধান শুরু করেছে বলে জানিয়েছেন শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আতাউর রহমান খোন্দকার।