মোলায়েম ডাঙ্গী উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. ইদ্রিস আলী বলেন, তামিম চলতি বছর তাঁর বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। সে মেধাবী শিক্ষার্থী ছিল। তবে রিমন তিন বছর আগে অষ্টম শ্রেণি থেকে নবম শ্রেণিতে ওঠে। এরপর সে পড়াশোনা ছেড়ে দিয়েছে।

এলাকাবাসী ও ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, তামিম মোটরসাইকেল চালিয়ে বাড়ি থেকে সদরপুর উপজেলা সদরের দিকে যাচ্ছিল। অন্যদিকে লিমন সদরপুর থেকে মণিকোঠার দিকে যাচ্ছিল। হিরা দুর্ঘটনাকবলিত দুই মোটরসাইকেলের কোনো একটির যাত্রী ছিলেন। আকটের চর ইউনিয়নের আমজেদ ব্যাপারীর বাড়ির সামনে পৌঁছালে ওই দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে তিন কিশোর গুরুতর আহত হয়।

তৎক্ষণাৎ স্থানীয় লোকজন আহত লিমন ও হিরাকে উদ্ধার করে সদরপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং তামিমকে উদ্ধার করে পাশের চরভদ্রাসন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে দুই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকেরা লিমন ও তামিমকে মৃত ঘোষণা করেন।

সদরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত গোলদার বলেন, খবর পেয়ে তৎক্ষণাৎ ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। নিহত দুই কিশোরের পরিবার হাসপাতাল থেকে লাশ বাড়িতে নিয়ে গেছে।