জেলা সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল বাশার বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে কোনো আহতের ঘটনা ঘটেনি। এ ব্যাপারে কেউ অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জেলা বিএনপির সভাপতি এম এ মজিদ বলেন, ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা অতর্কিত তাঁদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে হামলা করেন। পরে বিএনপি নেতা-কর্মীরা তা প্রতিহত করেছেন। এতে তাঁদের কয়েকজন আহত হয়েছেন।

এ বিষয়ে জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক আশফাক মাহমুদ বলেন, বিএনপি নেতা-কর্মীরা তাঁদের ওপর হামলা করেছেন। এতে তাঁদের বেশ কয়েকজন নেতা-কর্মী আহত হয়েছেন।